পচেফস্ট্রুম টেস্টের পঞ্চম ও শেষ দিনে দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ৩৩৩ রানে হেরেছে বাংলাদেশ। ৪২৪ বিশাল টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে মাত্র ৯০ রানেই গুটিয়ে যায় তারা।

আগের দিনের ৩ উইকেটে ৪৯ রান নিয়ে খেলা শুরু করেন বাংলাদেশের দুই অপরাজিত ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ। দুজনই সতর্কতার সঙ্গে ব্যাট চালিয়ে ইনিংসকে সামনে টেনে নেয়ার পরিকল্পনা করেন।

কিন্তু দিনের শুরুতেই পেস তাণ্ডব শুরু করেন কাগিসো রাবাদা। দলের মাত্র ছয় রান যোগ হতেই ব্যক্তিগত ১৬ রানে ফিরে যান চতুর্থ ব্যাটসম্যান হিসেবে নামা মুশফিক। প্রথম স্লিপে থাকা হাশিম আমলা ক্যাচটি তুলে নেন। রাবাদার পরের শিকার হন মাহমুদউল্লাহ। ১৮ বলে নয় রান করে বোল্ড হন তিনি। লিটন দাসকে এলবিডব্লিউ আউট করে নিজের শেষ আঘাতটি হানেন তরুণ এ পেসার।

শেষদিকে সাব্বির রহমান, তাসকিন আহমেদ ও শফিউল ইসলামের উইকেট তুলে নেন কেশব মহারাজ। তারা কেউই পাঁচ রানের বেশি করতে পারেন নি।

এর আগে গতকাল রোববার ৩২ রান করা ওপেনার ইমরুল কায়েসকে ফেরান স্পিনার মহারাজ। আর ইনিংসের প্রথম ওভারেই তামিম ইকবাল ও মুমিনুল হককে আউট করেন পেসার মরনে মরকেল।

চতুর্থ দিনে ছয় উইকেটে ২৪৭ রানে দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষণা করে দক্ষিণ আফ্রিকা। মুমিনুল ৩টি ও মুস্তাফিজ নেন ২টি উইকেট।

এর আগে বাংলাদেশ প্রথম ইনিংসে অলআউট হয় ৩২০ রানে। আর ৩ উইকেটে ৪৯৬ রানে প্রথম ইনিংস ঘোষণা করে দক্ষিণ-আফ্রিকা।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

দক্ষিণ আফ্রিকা ১ম ইনিংস: ১৪৬ ওভারে ৪৯৬/৩(এলগার ১৯৯, মার্করাম ৯৭, আমলা ১৩৭, বাভুমা ৩১*, ডু প্লেসি ২৬*; মোস্তাফিজ ১/৯৮, শফিউল ১/৭৪, মিরাজ ০/১৭৮, তাসকিন ০/৮৮, মাহমুদউল্লাহ ০/২৪, মুমিনুল ০/১৫, সাব্বির ০/১৫)।

বাংলাদেশ ১ম ইনিংস: ৮৯.১ ওভারে ৩২০ (মুমিনুল ৭৭, তামিম ৩৯, মাহমুদউল্লাহ ৬৬, সাব্বির ৩০, মিরাজ ৮, তাসকিন ১, শফিউল ২, মোস্তাফিজ ১০*; মর্কেল ২/৫১, রাবাদা ২/৮৪, মহারাজ ৩/৯২, অলিভিয়ের ১/৫২, ফেলুকওয়ায়ো ১/১৮, মার্করাম ০/১৩)।

দক্ষিণ আফ্রিকা ২য় ইনিংস: ৫৬ ওভারে ২৪৭/৬ (মার্করাম ১৫, এলগার ১৮,  আমলা ২৮, বাভুমা ৭১, ডু প্লেসি ৮১, ডি কক ৮, ফেলুকওয়ায়ো ৬*, মহারাজ ২৮* ;মিরাজ ০/৬৯, শফিউল ১/৪৬,  মোস্তাফিজ ২/৩০,  তাসকিন ০/২৯)।

বাংলাদেশ ২য় ইনিংস: ৩২.৪ ওভারে ৯০ (মুমিনুল ০, তামিম ০, মাহমুদউল্লাহ ৯, সাব্বির ৪, মিরাজ ১৫*, তাসকিন ৪, শফিউল ২, মোস্তাফিজ ১; মর্কেল ২/১৯, রাবাদা ৩/৩৩, মহারাজ ৪/২৫, অলিভিয়ের ০/১২)।

ফল: ৩৩৩ রানে হারল বাংলাদেশ।

সিরিজ: ১-০ ব্যবধানে এগিয়ে দক্ষিণ আফ্রিকা।

 

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here