বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা ও সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানকে বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবর্তক বলায় সংলাপ বর্জন করেছেন কৃষক শ্রমিক জনতা লীগের সভাপতি বঙ্গবীর কাদের সিদ্দিকী। একই সঙ্গে প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নুরুল হুদার পদত্যাগও দাবি করেছেন তিনি।

সোমবার দুপুরে ২ ঘণ্টা আলোচনার পর কাদের সিদ্দিকী তার দলের লোকজন নিয়ে সংলাপ থেকে চলে আসেন।

এতে অন্য নির্বাচন নির্বাচন কমিশনার, ইসির ভারপ্রাপ্ত সচিবসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা অংশ নেন। কিন্তু সংলাপ শুরু হলে রোববার বিএনপির সঙ্গে সংলাপে সিইসির দেওয়া বক্তব্যের তীব্র সমালোচনা করেন কাদের সিদ্দিকী।

উল্লেখ্য, গতকাল রোববার নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে সংলাপ করেছে বিএনপি। এসময় প্রধান নির্বাচন কমিশনার জিয়াউর রহমান ও বিএনপির প্রশংসা করেছেন। তিনি জিয়াউর রহমানকে বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবর্তক বলেও উল্লেখ করেন।

বিতর্কিত ওই বক্তব্যে সিইসি বলেছিলেন, শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান ৩৯ বছর পূর্বে ১৯৭৭ সালে অত্যন্ত দৃঢতার সাথে বিএনপি গঠন করেন। সে দলে ডান, বাম, মধ্যপন্থি সব মতাদর্শের অনেক রাজনৈতিক ব্যক্তিকে একত্র করেন। তার মধ্য দিয়েই দেশে বহুদলীয় গণতন্ত্র পুন:প্রতিষ্ঠা লাভ করে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here