রাখাইন রাজ্যে রোহিঙ্গাদের ওপর নির্যাতনের কারণে বিশ্বব্যাংক মিয়ানমার সরকারের  অর্থ সহায়তা হিসেবে ২ কোটি ডলার ঋণ স্থগিত করেছে।

মিয়ানমারের রাখাইন রাজ্যের পরিস্থিতি বিশ্লেষণের পর শুক্রবার ওয়াশিংটনে বিশ্বব্যাংকের এক বিবৃতিতে বলা হয়, আমরা সম্প্রতি অনুমোদিত উন্নয়ন নীতির শর্তাদি মূল্যায়ন করেছি এবং ঋণের কার্যকারিতা অর্জনের জন্য আরো অগ্রগতি প্রয়োজন বলে আমরা আশা করছি।

ঋণ স্থগিতের বিষয়ে বিশ্বব্যাংকের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, অ-বৈষম্য, সামাজিক অন্তর্ভুক্তি এবং সকলের জন্য অর্থনৈতিক সুযোগের মৌলিক নীতির জন্য একটি প্রতিষ্ঠান হিসেবে, আমরা রোহিঙ্গাদের সহিংসতা, ধ্বংস ও জোরপূর্বক স্থানচ্যুতি নিয়ে গভীরভাবে উদ্বিগ্ন।

রোহিঙ্গা সংকটের পশ্চাদপদতা নিয়ে বিশ্বব্যাংকের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, দেশে শিক্ষা, স্বাস্থ্যসেবা, বিদ্যুৎ, গ্রামীণ সড়ক এবং সকল জাতিগত গোষ্ঠী ও ধর্মের অন্তর্ভুক্তি, বিশেষ করে মধ্যপ্রাচ্য ও উ রাখাইন রাজ্য।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here