নরসিংদীর শিবপুরে মোবাইল চুরির অপবাদ দিয়ে এক কিশোরীকে কেরোসিন ঢেলে আগুন লাগিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। শনিবার ভোর ৫টার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

ওই কিশোরীর নাম আজিজা খাতুন (১৫)। তিনি শিবপুর উপজেলার খুনকুটি গ্রামের আবদুল সাত্তারের মেয়ে।

মেয়েটির ভাই সুজনের অভিযোগ, দুইদিন আগে আজিজার চাচি বিউটি বেগমের মোবাইল চুরি হয়। এ ঘটনায় আজিজাকে অপবাদ দিয়ে তার চাচি ও কয়েকজন মিলে শুক্রবার সন্ধ্যায় তাকে বাড়ির পাশে জঙ্গলে নিয়ে গিয়ে হাত-পা বেঁধে, গায়ে কেরোসিন দিয়ে আগুন ধরিয়ে দেয়। রাতে গুরুতর অবস্থায় আজিজাকে ঢামেক হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। শনিবার ভোরের দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

ঢামেক হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই বাচ্চু মিয়া ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here