আতলেতিকো মাদ্রিদ ফরোয়ার্ড আঁতোয়া গ্রিজম্যানকে সতীর্থ হিসেবে পেতে আপত্তি নেই লিওনেল মেসির। তবে লুইস সুয়ারেসকেও হারাতে চান না। ক্লাব কর্তৃপক্ষকে শর্ত দিয়েছেন সুয়ারেসকে রেখে যদি গ্রিজমানকে নেয়া হয় তাহলেই সমর্থন করবেন। ইউরোপের বেশ কয়েকটি গণমাধ্যমে এসেছে এমন সংবাদ।

এমএসএন ত্রয়ী ভেঙে যাওয়াতে ভরাডুবি হবে বার্সেলোনার এমনটা যারা ভেবেছিলেন সেই কল্পনাকে মিথ্যে করে দিয়েছে কাতালান জায়ান্টরা। ১১ রাউন্ড শেষে চির প্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদের চেয়ে আট পয়েন্টের লিডে আছে মেসিরা।

তবে স্বস্তিতে নেই বার্সেলোনা ম্যানেজমেন্ট। লা লিগায় দল শীর্ষে, লিওনেল মেসি আছেন দুর্দান্ত ফর্মে। কিন্তু সুয়ারেজের অফফর্ম চিন্তায় ফেলেছে ভালভার্দেকে। প্রতিপক্ষের জালে জড়ানো ৩০ গোলের মধ্যে সুয়ারেজের ঝুলিতে মাত্র তিনটি।

যেখানে মেসির গোল ১২টি সেখানে সুয়ারেজের এই পরিসংখ্যান দুশ্চিন্তারও বটে। তাই আতলেতিকো মাদ্রিদ থেকে আঁতোয়া গ্রিজমানকে দলে ভেড়ানোর গুঞ্জন ইউরোপিয় গণমাধ্যমগুলোতে। সেক্ষেত্রে হয়তো সুয়াজেকে ছেড়ে দেবে ক্লাবটি।

তবে বাধ সেজেছেন সয়ং লিওনেল মেসি। গ্রিজমানকে দলে টানার সিদ্ধান্ত নিঃসন্দেহে চমৎকার। তবে, নেইমারের বিকল্প হিসেবে এই ফ্রেঞ্চম্যানকে নিতে গিয়ে সুয়ারেজকে বাদ দেয়া যাবেনা। যদি নিতেই হয়, সুয়ারেজকে রেখেই নিতে হবে। গ্রিজমানও অবশ্য খুব ভাল অবস্থায় নেই চলতি মৌসুমে মাত্র ২ গোল করে ধুঁকছেন।

সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে জানুয়ারিতেই ন্যু ক্যাম্পে দেখা যাবে আঁতোয়া গ্রিজমানকে। এখন সুয়ারেজ সমস্যা কিভাবে মেটাবে বার্সেলোনা তা অনেকটাই নির্ভর করছে ভালভার্দের ওপর।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here