৫০ ওভারের ম্যাচে সেঞ্চুরি অহরহ হলেও ডাবল সেঞ্চুরি হাতেগোনা পাঁচটি। ট্রিপল সেঞ্চুরির কোন রেকর্ড নেই ওয়ানডে ক্রিকেটে। সেখানে ওয়ানডে ক্রিকেট ৪৯০ রানের ইনিংস! কি চোখ কপালে উঠে গেলো? উঠে যাওয়ারই কথা। নিজের জন্মদিনে এমন এক কীর্তি গড়লেন দক্ষিণ আফ্রিকার এক ব্যাটসম্যান। অন্তত কল্পনা করুন বোলারদের কি অবস্থা হয়েছে সেদিন।

শেন ড্যাডসওয়েল নামের ২০ বছরের এই তরুণ ক্লাব ক্রিকেটে এই কীর্তি গড়ে বিশ্বরেকর্ড গড়েছেন। গতকালই ২০ বছরে পা রেখেছেন তিনি। জন্মদিনের দিন এতটাই ভয়ঙ্কর হয়ে উঠবেন ড্যাডসওয়েল কে জানতো!

ক্রিকেট সাউথ আফ্রিকার ওয়েবসাইট অনুযায়ী, শনিবার ক্লাব ক্রিকেটে নর্থ-ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটি পুকের হয়ে ব্যাট হাতে ওপেনিংয়ে নামেন ডানহাতি ব্যাটসম্যান ড্যাডসওয়েল। সেই ম্যাচেই বিস্ময় লাগানো ইনিংস উপহার দেন উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান ড্যাডসওয়েল। পোচ ড্রপসের বিপক্ষে ৫০ ওভারের ম্যাচে ড্যাডসওয়েলের ৪৯০ আর রুয়ান হাসব্রোকের অপরাজিত ১০৪ রানের সুবাদে ৩ উইকেট হারিয়ে পুকে তুলেছিল ৬৭৭ রান।

৪৯০ রান করতে উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান ড্যাডসওয়েল খেলেছেন মাত্র ১৫১ বল। তার ইনিংসে ছিল ২৭টি চারের মার। আর ছক্কা ছিল ৫৭টি। ৫৪ বল মোকবেলা করে ১২টি চার আর ৬টি ছক্কায় ১০৪ রান করে অপরাজিত থাকেন হাসব্রোক। সবমিলিয়ে নর্থ-ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটির ইনিংসে ৬৩টি ছক্কা এবং ৪৮টি চারের মার ছিল।

জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে পোচ ড্রপ একাদশ ৯ উইকেট হারিয়ে ২৯০ রান করতে সক্ষম হয়। ফলে ৩৮৭ রানের বড় ব্যবধানে জয় পায় নর্থ-ওয়েস্ট ইউনিভার্সিটি।

প্রথম শ্রেণির ক্রিকেটে সর্বোচ্চ ২৬৮ রানের ইনিংস খেলার রেকর্ড আলি ব্রাউনের। অন্যদিকে ওয়ানডেতে সর্বোচ্চ ২৬৪ রানের ইনিংস খেলার বিশ্বরেকর্ড ভারতের তারকা ব্যাটসম্যান রোহিত শর্মার দখলে। ড্যাডসওয়েল ক্লাব ক্রিকেটে একাই খেললেন প্রায় দ্বিগুণ রানের ইনিংস।

 

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here