মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, আমেরিকা বোকার মতো মধ্যপ্রাচ্যে সাত সাত ট্রিলিয়ন ডলার খরচ করেছে। তিনি জোর দিয়ে বলেছেন, “এ অর্থ ব্যয় আমাদের দেশ পুনর্নিমাণের পরিবর্তে দুই দলের ফ্যাশন হিসেবে কাজ করেছে।”

গতকাল (শুক্রবার) এক টুইটার বার্তায় প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প এসব কথা বলেছেন। তিনি আরো বলেছেন, “আমি ধারণা করি একটা পর্যায় থেকে দেশের কল্যাণের জন্য আমরা দ্বি-দলীয় ফ্যাশন হিসেবে ডেমোক্র্যাট দলের সঙ্গে কাজ করতে পারব।” তিনি বলেন, দেশ নির্মাণের ক্ষেত্রে অবকাঠামো দিয়ে শুরু করাই হবে সঠিক পদক্ষেপ।

ফিলিস্তিনের বায়তুল মুকাদ্দাস ইস্যুতে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ভোটাভুটিতে চরম পরাজয়ের মুখে পড়ার একদিন পর ডোনাল্ড ট্রাম্প তার নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে এসব কথা বললেন।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট গত ৬ ডিসেম্বর বায়তুল মুকাদ্দাস শহরকে ইহুদিবাদী ইসরাইলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেয়ার পর মিশর ও ফিলিস্তিনি কর্তৃপক্ষের কর্মকর্তারা মিলে ট্রাম্পের সিদ্ধান্ত বাতিলের দাবিতে জাতিসংঘে একটি প্রস্তাব তোলেন। ওই প্রস্তাবের পক্ষে বৃহস্পতিবার জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের ১৯৩টি সদস্য দেশের মধ্যে ১২৮টি দেশ ভোট দিয়েছে। প্রস্তাবের বিপক্ষে ভোট দিয়েছে আমেরিকা ও ইসরাইলসহ মাত্র নয়টি দেশ। ৩৫টি দেশ ভোট দেয়া থেকে বিরত ছিল। ভোটাভুটির আগে বিশ্বের বিভিন্ন দেশকে আমরিকার বিরুদ্ধে ভোট দেয়ার বিষয়ে হুমকি দিয়েছিলেন ট্রাম্প। কিন্তু তা উপেক্ষা করেই বহু দেশ মার্কিন পদক্ষেপের বিরুদ্ধে ভোট দিয়েছে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here