পৃথিবীর অভ্যন্তরে এখনও অনেক জায়গা রয়েছে যার নাগাল পাননি বিজ্ঞানীরা। যার একটি জ্বলজ্বলে উদাহরণ বারমুডা ট্রায়াঙ্গেল। এটি ছাড়াও আরও অনেক জায়গা রয়েছে যার নামও আজ পর্যন্ত আবিষ্কার হয়নি। এলিয়ান নিয়েও বিজ্ঞানীরা বিভিন্ন সময়ে বিভিন্ন মত প্রকাশ করেছেন। কিন্তু আদৌ কি রয়েছে এলিয়ান? সেই নিয়ে দ্বন্দ্ব আরও একবার প্রকাশ্যে এল।

বিজ্ঞানীরা জানাচ্ছেন, পৃথিবীর অভ্যন্তর একেবারেই ফাঁপা। এমনকি সেখানেই এলিয়ান, ভিকিংস এবং নাজিসের বাস। একইসঙ্গে তারা দাবি করেছে, এখানেই নাকি বাস ইউএফও দের। তারা মানবজাতির উপর সর্বদা কড়া নজর রেখে চলেছে। এমনকি পরমাণু যুদ্ধ বেঁধে যাতে এই গ্রহ ধ্বংস না হয় সেদিকেও তারা বিশেষ খেয়াল রাখে।

পৃথিবীর নর্থ পোলেই নাকি সেই অংশটি রয়েছে। যেখানে ইউএফও, এলিয়ানরা থাকে। আর অপরটি রয়েছে হিমালয়ে। তবে, সেখানে পৃথিবীর নিয়ম খাটেনা। তাদের নিজস্ব নিয়মে তারা চলে। এমনকি সেখানে রয়েছে নিজস্ব সোলার সিস্টেম। সেখানেও রয়েছে চাঁদের মতনই কোনও উপগ্রহও। এমনটাই দাবি বিজ্ঞানীদের।

মাঝে মাঝেই এলিয়ান কিংবা UFO যানের দেখা মেলে মহাকাশে। সেগুলো হয়তো পৃথিবীর সঙ্গে যোগাযোগ রাখার জন্যই ব্যবহার করা UFO এবং এলিয়ানরা।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here