কয়েকদিন আগেই দর্শক পেটানোর অভিযোগ উঠেছে সাব্বির রহমানের বিরুদ্ধে। এরমধ্যেই ব্যাপারটি নিয়ে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) করছে বিচার-বিশ্লেষন। টাইগার এ ডানহাতি ব্যাটসম্যান যদি ঐ ঘটনায় দোষী হন, তাহলে বড় শাস্তির মুখে পড়তে পারেন তিনি। কিন্তু এসব নিয়ে মোটেও চিন্তিত নন রাজশাহীর ক্রিকেটার। শনিবার মিরপুর একাডেমিতে অনুশীলনে তাকে দেখা গেল বেশ নির্ভার।

অনুশীলনে বেশ খোস মেজাজে রয়েছেন সাব্বির। শনিবার সকালে জিমনেশিয়ামে সতীর্থদের সঙ্গে জিম করেন তিনি। পরে তাদের সঙ্গে গল্পে মেতে ওঠেন ডানহাতি এ ব্যাটসম্যান।  তার শরীরী ভাষা দেখে মনেই হবে না যে, দর্শক পেটানোর ঘটনা নিয়ে তিনি চিন্তিত।

এরআগে গত ২১ ডিসেম্বর রাজশাহীর শহীদ কামরুজ্জামান স্টেডিয়ামে জাতীয় লিগের শেষ রাউন্ডে রাজশাহী-ঢাকা মহানগরের ম্যাচের দ্বিতীয় দিনে লাঞ্চের ঘণ্টা খানেক পর ঘটে ঐ ঘটনাটি। তখন মহানগর প্রথম ইনিংসে ব্যাটিং করছে। সাব্বির খেলেছেন রাজশাহীর হয়ে।

ড্রেসিংরুম থেকে নেমে সাব্বির যাচ্ছিলেন মাঠের দিকে। সে সময় গ্যালারি থেকে তাঁকে উদ্দেশ করে কেউ একজন বাজে কোনো কথা বলে।

খেলা চলার সময় পরিচিত কাউকে দিয়ে ওই দর্শককে ধরে সাইটস্ক্রিনের পেছনে নেন সাব্বির। পরে তিনি মাঠের আম্পায়ারদের কাছ থেকে অনুমতি নিয়ে সেখানে যেয়ে ১০-১২ বছর বয়সী ওই কিশোর দর্শককে মারধর করেন।

২২ ডিসেম্বর সাব্বিরের বিরুদ্ধে গুরুতর শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগ এনে বিসিবির ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগে প্রতিবেদন জমা দিয়েছেন ম্যাচ রেফারি শওকাতুর রহমান। ঐ ঘটনা প্রমাণিত হলে শাস্তি হিসেবে সর্বোচ্চ ৫ লাখ টাকা পর্যন্ত জরিমানা ও ঘরোয়া লিগে কয়েকটি ম্যাচ নিষিদ্ধ হতে পারেন সাব্বির।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here