ইহুদিবাদী ইসরাইলের সঙ্গে ফিলিস্তিনের ভবিষ্যত কথিত শান্তি আলোচনায় আমেরিকার ভূমিকা কী হবে তা নিয়ে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের সঙ্গে আলোচনা করেছেন ফিলিস্তিনি স্বশাসন কর্তৃপক্ষের প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস।

গতকাল (সোমবার) মস্কোয় অনুষ্ঠিত বৈঠকে তিনি পুতিনকে পরিষ্কার করে বলেছেন, ইসরাইলের সঙ্গে ভবিষ্যত আলোচনায় তার দেশ ওয়াশিংটনকে আর মধ্যস্থতাকারী হিসেবে মানবে না। আব্বাস বলেন, “মধ্যস্থতাকারী হিসেবে আমেরিকার সঙ্গে আমরা এখন থেকে আর কোনো রকমের সহযোগিতা করব না; আমরা তাদের কর্মকাণ্ডের বিরুদ্ধে অবস্থান নিয়েছি।”

মাহমুদ আব্বাস বলেন, মধ্যপ্রাচ্য বিষয়ক আলোচনার ক্ষেত্রে জাতিসংঘ, আমেরিকা, রাশিয়া ও ইউরোপীয় ইউনিয়নের সমন্বয়ে গঠিত চতুষ্টয়ের পরিবর্তন চায় তার দেশ এবং এখন থেকে নতুন ও বর্ধিত মধ্যস্থতাকারী চায়।

এর আগে, জাতিসংঘে নিযুক্ত ফিলিস্তিনের রাষ্ট্রদূত রিয়াদ মানসুর গত শনিবার বলেছেন, তারা ভবিষ্যতে আলোচনায় চীন ও আরব লীগকে অন্তর্ভুক্ত করতে চান। আমেরিকার কর্তৃত্বকামী আচরণের কারণে তারা এমনটি চিন্তা করছেন বলে জানান রিয়াদ মানসুর।

গত ৬ ডিসেম্বর মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ফিলিস্তিনের বায়তুল মুকাদ্দাস শহরকে ইসরাইলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছেন। এরপর থেকে ফিলিস্তিনিরা ব্যাপকমাত্রায় ক্ষুব্ধ হয়েছেন এবং প্রেসিডেন্ট মাহমুদ আব্বাস তখন বলেছিলেন, ভবিষ্যতে ফিলিস্তিন-ইসরাইল আলোচনায় আমেরিকাকে আর মধ্যস্থতাকারী হিসেবে মানবেন না তিনি।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here