গলায়, কাঁধে ও হাতে সব শিক্ষা সনদ (সার্টিফিকেট) নিয়ে আগামী ২৫ মার্চ শাহবাগ থেকে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার পর্যন্ত রাস্তা ঝাড়ু দিয়ে পরিষ্কার করবেন সরকারি চাকরিতে বিদ্যমান কোটা প্রথা সংস্কারের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা। আন্দোলনকারীদের বিরুদ্ধে পুলিশের করা মামলা প্রত্যাহারসহ তাদের আগের দাবিতে রবিবার করা বিক্ষোভ শেষে অভিনব এ কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়। সকাল ১১টায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগারের সামনে থেকে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের উদ্যোগে বিক্ষোভ মিছিল হয়। এতে ঢাবির বিভিন্ন হলের সহস্রাধিক শিক্ষার্থী ও চাকরিপ্রত্যাশীরা অংশ নেন।

মিছিলটি ক্যাম্পাসের বিভিন্ন সড়ক, শাহবাগ মোড়, টিএসসি, নীলক্ষেত মোড় ঘুরে রাজু ভাস্কর্যে এসে সমাবেশের মাধ্যমে শেষ হয়। সমাবেশে আন্দোলনকারীদের পক্ষ থেকে নতুন কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়। আন্দোলনের অন্যতম সমন্বয়ক হাসান আল মামুন বলেন, আন্দোলনের অংশ হিসেবে আগামী ২৫ মার্চ শাহবাগ থেকে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার পর্যন্ত পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা অভিযান। ২৯ মার্চ কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারে বিকাল ৪টায় আহ্বান করা হয়েছে নাগরিক সমাবেশ।

আন্দোলনকারী তারেক মাহমুদ বলেন- কোটা সংস্কারের যে দাবি, এটা আমাদের কোনো অযৌক্তিক দাবি নয়। ইতোমধ্যে সুশীলসমাজও কোটা সংস্কারের পক্ষে কথা বলছেন। আমরা আশা করছি তরুণদের মনের ভাষা সরকার বুঝতে পারবে। অচিরেই এ কোটা ব্যবস্থার সংস্কার করবে তারা।

এদিকে গত ১৪ মার্চ আন্দোলনকারীরা জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় ঘেরাওয়ে গেলে হাইকোর্টের সামনে পুলিশ টিয়ার শেল নিক্ষেপ ও লাঠিচার্জ করে। এ সময় ঘটনাস্থলে অন্তত ১৫ আন্দোলনকারী আহত হন। এ ছাড়া দুই ধাপে ৫৩ জনকে আটক করে পুলিশ। পরে আটককৃতদের মুক্তির দাবিতে শাহবাগ থানার সামনে বিক্ষোভ করলে পুলিশ তাদের ছেড়ে দেয়। কিন্তু পুলিশি কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগ এনে শাহবাগ থানায় অজ্ঞাতনামা ৭০০-৮০০ আন্দোলনকারীর বিরুদ্ধে মামলা করা হয়। তারই প্রতিবাদে গতকাল বিক্ষোভ করেছে আন্দোলনকারীরা।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here