মেয়েদের মন বোঝা বেশ কষ্টসাধ্য। কারণ তারা তাদের মনের কথা সহজে প্রকাশ করতে চায় না। ঠিক তেমনি পুরুষদের ব্যক্তিত্বের এমন কিছু দিক যা মেয়েরা মুখে অপছন্দের কথা বললেও মনে মনে আসলে সেগুলো ঠিকই পছন্দ করে। তাই এ বিষয়ে লাইফস্টাইল ইভেন্ট গ্রুপ ফেমিয়ানা’র দ্বারা পরিচালিত একটি সমীক্ষার ফলাফলে উঠে এসেছে বেশ কিছু তথ্য।

সমীক্ষাটির লক্ষ্য ছিল, এমন কয়েকটি বিষয় পুরুষের চরিত্রের যা মেয়েরা অপছন্দের ভান করেন কিন্তু মনে মনে আসলে সেগুলি ঠিকই পছন্দ করেন। এ লক্ষ্যে ছয় হাজার ৭২৯ জন নারীকে প্রশ্ন করার পর সমীক্ষার ফলাফল সংস্থাটি প্রকাশ করেছে। যেখানে মেয়েদের গোপন কিছু ভালোলাগার কথা উঠে আসে। সেখান থেকেই কিছু তথ্য আপনাদের জন্য তুলে ধরা হলো:

ঝগড়ার সময় তর্ক না করা: ঝগড়ার মুহূর্তে যে সব পুরুষ সঙ্গিনীর সঙ্গে তর্ক না করে মাথা ঠান্ডা রাখতে পারে, সেসব পুরুষদেরই মেয়েরা বেশি পছন্দ করে। যদিও মেয়েরা মুখে মুখে অভিযোগ করবে ওর তো সাত চড়ে রা নেই কিন্তু জানবেন মনে মনে আপনার এই স্বভাব তিনি পছন্দই করেন।

বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডা দেয়া: অনেক মেয়েই অসন্তোষ প্রকাশ করে যে তার স্বামী বা প্রেমিক অনেক বেশি বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডা দেয়। কিন্তু সে আসলে মনে মনে খুশিই হয়। কারণ মেয়েরা আসলে চায় ছেলেরা একটু সামাজিক হোক, অন্য ছেলে বন্ধুদের সঙ্গে একটু আড্ডা মারুক এমটাই মেয়েরা আসলে পছন্দ করেন। আসলে সারাদিন ঘরে শুয়ে বসে সময় কাটায় এমন ছেলেদের মেয়েরা মোটেই পছন্দ করে না।

আমি যখন কথা বলব, তুমি চুপ করে থাকবে: মেয়েরা অনেক সময় তার প্রেমিক বা স্বামীর সঙ্গে ঝগড়ার সময় বলে থাকে আমি যখন কথা বলব তুমি চুপ থাকবে। কিন্তু তার অর্থ এই নয় যে, তিনি সত্যিই চাইছেন তাঁর সঙ্গীটি মুখ বুজে থাকুক। কিন্তু কোনো কথা না বললে বা যুক্তির বিপক্ষে প্রতিযুক্তি না দিলে কোনো সমস্যার সমাধান হয় না এ কথা যে কোনো বুদ্ধিমতী মেয়েই জানে। তাই আপনার এই শীতলতা নিয়ে আপনার সঙ্গিনী অভিযোগ করলেও জানবেন, মনে মনে আপনার এই স্বভাব তিনি পছন্দই করেন।

খেলার চ্যানেল দেখা: বাসায় ফিরেই খেলার চ্যানেল খুলে বসা থাকে, এমন অভিযোগ প্রায় প্রতিটি স্ত্রীই তার স্বামী সম্পর্কে করে থাকে। আসলে মেয়েরা কিন্তু খেলাধুলো ব্যাপারটাকে যথেষ্ট পুরুষালি বলে মনে করেন। সেই কারণেই মেয়েদের মধ্যে খেলোয়াড়রা এত বেশি জনপ্রিয়। নিজের স্বামীটি খেলতে না পারলেও অন্তত খেলা দেখতে ভালবাসে, এই ভাবনা মনে মনে শান্তি দেয় অধিকাংশ মহিলাকেই।

নিজের মনের কথা বুঝতে দেয় না: মেয়েরা অনেক সময় এ কথাটা অভিযোগের সুরে বলে থাকে যে ওতো নিজের মনের কথা আমাকে বুঝতেই দেয় না।পুরুষের মানসিক দৃঢ়তার পরিচায়ক হলো মনের কথা নিজের মধ্যেই সীমাবদ্ধ রাখা, এমনটাই মনে করেন মেয়েরা। তবে এর অর্থ আবার এই নয় যে, নিজের মনের ভালোলাগা বা মন্দলাগা কোনো কিছুই সঙ্গিনীর সঙ্গে শেয়ার না করলে তারা খুশি হবেন। যেসব পুরুষ নিজের দুশ্চিন্তা বা দুঃখগুলো বেশি প্রকাশ করে না, সেসব পুরুষদেরকেই মেয়েরা বেশি পছন্দ করে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here