ন্যাশনাল পিপলস্ পার্টির (এনপিপি) প্রেসিডিয়াম সদস্য বাবুল সরদার চাখারী। বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলার মাদারকাঠী গ্রামের মৃত ইসমাইল সরদারের ছেলে তিনি। এ পর্যন্ত পরিচয় ঠিক আছে। কিন্তু তার ভিজিটিং কার্ডের পরিচয়টা জানলে আঁতকে উঠবেন। নিজের ছবি ছেপে তাতে পরিচয় দিয়েছেন বরিশাল-২ (বানারীপাড়া-উজিরপুর) আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তালুকদার মো. ইউনুস।

তবে বড় একটা তদবির করতে গিয়েই তিনি ধরা খেলেন। মুজিবকোর্ট পরে বুধবার সকালে পল্লী বিদ্যুতের (আরইবি) চেয়ারম্যান মেজর জেনারেল মইনুদ্দিনের কাছে গিয়ে মুন্নু সিরামিকসের ৫ কোটি ৩৮ লাখ ৩৮ হাজার ৩০ টাকার বকেয়া বিল মওকুফের জন্য তদবির করেন। এমপি পরিচয়য়ে নিজের ভিজিটিং কার্ডও তিনি দেন।

কিন্তু কথাবার্তায় সন্দেহ হলে আরইবি চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট তালুকদার মো. ইউনুস এমপির সঙ্গে টেলিফোনে যোগযোগ করেন। এ সময় প্রতারণার বিষয়টি নিশ্চিত হলে এমপি ইউনুসের পরামর্শেই বাবুলকে পুলিশে সোপর্দ করে আরইবি কর্তৃপক্ষ।

এ বিষয়ে খিলক্ষেত থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. শহিদুল হক জানান, প্রতারণার অভিযোগে বাবুলের বিরুদ্ধে দণ্ডবিধির ১৭০ ও ৪১৯ ধারায় একটি মামলা করা হয়েছে।

তবে বাবুল সরদার চাখারীর দল এনপিপির কেন্দ্রীয় চেয়ারম্যান ছালাউদ্দিন ছালু বলেন, বাবুলের বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। তার ব্যক্তিগত কোনো অপরাধের দায় দল বহন করবে না।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here