পোড়া তেলে খাবার ভাজা, রান্নায় অপরিশোধিত পানি ব্যবহার ও অধিকদামে খাবার বিক্রির অপরাধে রাজধানীর ধানমণ্ডির কেএফসিকে ১ লাখ টাকা জরিমানা করেছেন র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত। বুধবার দুপুর ১টার দিকে র‌্যাব সদর দপ্তরের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. সারওয়ার আলমের নেতৃত্বে অভিযান পরিচালনা করা হয়।

প্রায় ঘণ্টাব্যাপী চলা এই অভিযানের শুরুতেই ভ্রাম্যমাণ আদালত কেএফসির কিচেন পরিদর্শন করেন। এসময় দেখা যায়, যেই ফিল্টার থেকে পানি নিয়ে রান্না করা হয় সেটি কাজ করছিল না। তবে রান্নাঘর পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন ছিল।

অভিযান শেষে সাংবাদিকদের নির্বাহী মেজিস্ট্রেট সারওয়ার আলম বলেন, লোকজন অতিরিক্ত মূল্য দিয়ে কেএফসির খাবার খাচ্ছেন। প্রাইস লিস্টে দেখলাম একটি চিকেন ফ্রাই তৈরিতে তাদের ৩১ টাকা ৭৫ পয়সা খরচ হয়। অথচ তারা ক্রেতাদের কাছে সেটা বিক্রি করছেন ১৩৯ টাকায়। এত টাকা নেওয়ার পরেও কেন তারা অপরিশোধিত পানি দিয়ে রান্না করবে?

যদিও প্রতিষ্ঠানটি নানা খরচের কথা উল্লেখ করেছে, তারপরও ৩৫০ শতাংশেরও বেশি মুনাফা করাকে অযৌক্তিক বলে মনে করেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের বিচারক। কেএফসিকে জরিমানা করার আরেক কারণ পুরনো তেলে মুরগি ও ফ্রেঞ্চফ্রাই ভাজা। রেস্টুরেন্টটিতে বিশুদ্ধ পানির লাইনও নষ্ট ছিল। জীবানুযুক্ত পানি ব্যবহার করেই সব কাজ করা হতো।

সারওয়ার আলম বলেন, কেএফসির যত আইটেম তেল দিয়ে ভাজা হয় সবই পুরাতন তেল। তারা কখনও পুরাতন তেল পরিবর্তন করে না।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here