মাদক ব্যবসার অভিযোগে তুমুল আলোচনায় থাকা কক্সবাজার-৪ আসনের সরকার দলীয় এমপি আবদুর রহমান বদির বড় বোনের দেবর আখতার কামালের গুলিবিদ্ধ মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। আজ সকালে কক্সবাজার মেরিনড্রাইভ রোড থেকে আখতার কামালের লাশ উদ্ধার করা হয়। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে ইয়াবা, বন্দুক ও গুলিরও উদ্ধার করা হয়েছে।

কামাল নিজেও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত ‘ইয়াবার গডফাদার’। তিনি এমপি বদির বড় বোন শামসুন্নাহারের দেবর এবং টেকনাফের সাবরাং ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচিত সদস্য।

পুলিশের ধারণা, প্রতিপক্ষ মাদক ব্যবসায়ীদের সঙ্গে গোলাগুলিতে আখতার কামালের মৃত্যু হয়েছে।

মেরিনড্রাইভ সড়কের হিমছড়ি পুলিশ ফাঁড়ির আইসি পরিদর্শক মনিরুল ইসলাম জানান, ভোরে দরিয়ানগর ব্রিজ এলাকায় গোলাগুলির খবর পেয়ে পুলিশ টহলে যায়। এক পর্যায়ে সেখানে সড়কের পাশে এক ব্যক্তির গুলিবিদ্ধ মরদেহ দেখতে পায়। মরদেহের পাশে এক হাজার পিস ইয়াবা, ১টি এলজি ও ৪ রাউন্ড গুলি পড়েছিল। পরে স্থানীয়রা এসে মরদেহটি এমপি বদির বেয়াই আকতার কামালের বলে শনাক্ত করে।

এ নিয়ে গতকাল ভোর থেকে আজ ভোর পর্যন্ত কক্সবাজারে আকতার কামালসহ তিনজনের গুলিবিদ্ধ মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এদের মাঝে বৃহস্পতিবার ভোরে মো. হাসান কলাতলীর পাহাড়ি এলাকায় আর রাত ১০টায় মোস্তাকের মরদেহ পাওয়া গেছে বড়মহেশখালীর মুন্সির ডেইল পাহাড়তলি এলাকায়।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here