হাথুরুর বিদায়ের পর ঘরের মাঠে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে সিরিজে বাংলাদেশ দলকে সামলেছেন খালেদ মাহমুদ সুজন। তবে শ্রীলঙ্কায় নিদাহাস টুর্নামেন্টে পাল্টে যায় দৃশ্যপট। ভারপ্রাপ্ত হেড কোচের ভূমিকায় আসেন বোলিং কোচ কোর্টনি ওয়ালশ।

সেই মিশনে বেশ ভালোই করেছিলেন তিনি। দলকে তুলেছিলেন ফাইনালে। যদিও ভারতের কাছে হেরে স্বপ্নভঙ্গ হয়েছিল শিরোপা জয়ের।

এরপর হেড কোচ নিয়োগে বেশ দৌড়ঝাঁপ করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)। শেষ পর্যন্ত পরামর্শকের শরণানাপন্ন হতে হয়েছে। এসেছিলেন গ্যারি কারস্টেন।

তিনি আশ্বাস দিয়ে গেছেন, ওয়েস্ট ইন্ডিজের আগে হেডকোচ পাবে মাশরাফিরা। কিন্তু তার আগে আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে টি-টোয়েন্টি সিরিজের কী হবে? কেউ যখন নেই, ওয়ালশ তো আছেন। হয়েছেও তাই। দেরাদুনে আফগান সিরিজে বাংলাদেশের দ্রোনাচার্যের ভূমিকায় থাকবেন ওয়ালশই।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here