ঈদকে সামনে রেখে বাসের অগ্রীম টিকিট বিক্রি শুরু হয়েছে। কিন্তু তাতে গতকাল শুরুতেই যে চিত্র দেখা গেছে, তা নিয়ে বিস্ময় ও হতাশা প্রকাশ করেছেন অনেকে। আজ সকালে মাত্র তিন ঘণ্টার মধ্যে শেষ হয়ে গেছে ১৪ জুনের বাসের টিকিট।

একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা সেগুনবাগিচার বাসিন্দা আশরাফ খান জানান, মঙ্গলবার রাতে সেহরি করে তিনি রংপুরের টিকিটের জন্য গাবতলী বাস টার্মিনালে যান। এবার তিনি সপরিবারে বাড়ি যাবেন। তাই অনেক আশা নিয়েই ১৪ জুনের টিকিট কিনতে লাইনে দাঁড়িয়েছিলেন। তখনও তার সামনে অন্তত দুই শতাধিক মানুষের দীর্ঘলাইন ছিল। কিন্তু সকালে টিকেট বিক্রি শুরু হওয়ার পর তিন ঘণ্টা অপেক্ষা পর কাউন্টারে পৌঁছে শোনেন ১৪ জুনের টিকিট শেষ।

একই ধরনের কথা জানালেন কুড়িগ্রামের টিকিট প্রত্যাশী রাজধানীর কলাবাগানের বাসিন্দা মতিহার আলীও। ১৪ তারিখের টিকিট না পেয়ে নিরুপায় হয়ে ১৫ জুনের টিকিট কেটেছেন তিনি।

মতিহার আলী বলেন, ১৪ জুন টিকিট পেলে গ্রামে গিয়ে ঈদের ছুটি ভালভাবে কাটাতে পারতাম। কিন্তু দুর্ভাগ্য তা পওয়া যায়নি। তারপরও ১৫ জুনের টিকিট পেয়ে আমি খুশি। বাড়িতে যেতেতো পারছি।

গাবতলির উত্তরবঙ্গগামী বিভিন্ন বাস কাউন্টারে কর্তব্যরত টিকেট বিক্রেতারা জানান, ১৪ জুনের টিকিটের চাহিদা বেশি। বাসের সংখ্যার হিসেবে ওই একই দিনের টিকিটের চাহিদা বেশি হওয়ায় সবাই টিকিট পাননি।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here