গিয়াস উদ্দিন কাদের (গিকা) চৌধুরীর বিরুদ্ধে গতকাল বিকালে ফটিকছড়িতে মামলা হয়। আর সন্ধ্যায় হামলা চালায় নগরীর গণি বেকারি এলাকায় অবস্থিত গুডস হিলের বাসায় একদল যুবক। মূল ফটক ভেঙে ভিতরে প্রবেশ করে সেখানে রাখা আটটি গাড়িতে ভাঙচুর চালায় তারা। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার হুমকি দেওয়ার অভিযোগেই গিকা চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলাটি হয়।

বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা ও উত্তর জেলা বিএনপির সাবেক সভাপতি গিয়াস উদ্দিন কাদের চৌধুরী বলেন, ‘সন্ধ্যায় জয় বাংলা শ্লোগান দিয়ে গুডস হিলে হামলা চালানো হয়। এটি একটি সুপরিকল্পিত হামলা। এতে ৪০ থেকে ৫০ জন অংশ নেয়।’

কারা এই হামলা চালিয়েছে বলে আপনার ধারণা? এ প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এটা তো সবাই জানে কারা হামলা চালিয়েছে। আমি নতুন করে আর কী বলব? এখনতো নীরবতা পালন করা ছাড়া আমার কিছু করার নেই।’

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রাত ৮টার দিকে ৪০ থেকে ৫০ যুবক লাঠিসোটা নিয়ে গুডস হিলের ফটক ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করে। তারা প্রথমে সাকা চৌধুরীর বাড়ির সামনের বিভিন্ন জিনিসপত্র তছনছ করে। এর পর সাকার ভাই সাইফুদ্দিন কাদের চৌধুরীর বাড়ির সামনের ফুলের টব ও চেয়ার টেবিল ভেঙে ফেলে। পরে গ্যারেজে রাখা সাতটি পাজেরো, মাইক্রোবাস ও প্রাইভেটকার এবং গ্যারেজের বাইরে রাখা একটি গাড়িতে ভাঙচুর চালায়।

নগরীর গণি বেকারির সামনে অবস্থিত গুডস হিল হচ্ছে যুদ্ধাপরাধী সালাহ উদ্দিন কাদের (সাকা) চৌধুরীর বাবা ফজলুল কাদের চৌধুরীর বাসভবন। পাহাড়ের ওপরে অবস্থিত বাড়িটি এদেশের মুক্তিযোদ্ধাদের কাছে একটি নির্যাতন কেন্দ্র। আর সাকা চৌধুরীর অনুসারীদের কাছে সেটি তীর্থ স্থানের মতো। ফলে বড় প্রাচীর ঘেরা এই বাড়িটির প্রতি চট্টগ্রামের আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের সবসময় ক্ষোভ জমে থাকে।

খবর পেয়ে কোতোয়ালী থানার একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়, যারা সংখ্যায় ছিলেন ১৫ জন। সেখানে দায়িত্বরত উপ-পরিদর্শক (এসআই) বিকাশ শীল বলেন, ‘কারা ভাঙচুর করেছে, তাদের আমরা দেখিনি। আর আমাদের কাছেও এ ব্যাপারে কেউ অভিযোগ দেয়নি।’

এদিকে মঙ্গলবার ফটিকছড়ি উপজেলায় বিএনপির এক সমাবেশে গিকা চৌধুরী প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে বলেন, ‘আপনার পরিণতি আপনার বাবার চেয়েও খারাপ হবে।’ তাই প্রধানমন্ত্রীকে হত্যার হুমকির অভিযোগে গতকাল বিকালে ফটিকছড়ি থানায় গিকা চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলা করেন ছাত্রলীগের এক নেতা। আর সন্ধ্যায় গুডস হিলে হামলা হয়। তবে এ সময় পরিবারের কোনো সদস্য সেখানে ছিলেন না।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here