দুর্নীতি মামলায় কারাবন্দি বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে দেখতে ঈদে দেশে আসছেন তার ছোট ছেলে প্রয়াত আরাফাত রহমান কোকোর স্ত্রী শর্মিলা রহমান সিঁথি। যেহেতু ঈদের আগে খালেদা জিয়ার মুক্তির কোনো সম্ভাবনা নেই, কারাগারেই তিনি শাশুড়ির সঙ্গে দেখা করতে চান। শর্মিলা রহমান তার দুই মেয়েকে নিয়ে বর্তমানে লন্ডনে অবস্থান করছেন।

বিএনপির একাধিক দায়িত্বশীল সূত্র বরছে, শুধু ঈদ নয়, বিএনপিকে আন্দোলনের পথে আনাও শর্মিলার ঢাকায় আসার এক বড় কারণ। ঈদের পর বিএনপি বড় ধরনের আন্দোলনের প্রস্তুতি নিচ্ছে। সেই আন্দোলনের কৌশল এবং করণীয় নিয়েও তিনি দলের সিনিয়র নেতাদের সঙ্গে কথা বলবেন।

গত ৮ মার্চ বেগম জিয়া এতিমখানা দুর্নীতি মামলায় দণ্ডিত হয়ে কারাগারে যান। তার গ্রেপ্তারের পর গত এপ্রিলে সৈয়দা শর্মিলা রহমান ১০ দিনের জন্য দুই মেয়েকে নিয়ে ঢাকায় আসেন। সে সময় তিনি কারাগারে খালেদা জিয়ার সঙ্গে দুবার সাক্ষাৎ করেন। এছাড়াও খালেদা জিয়াকে বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হলে সেখানেও তিনি শাশুড়ির সঙ্গে দেখা করেন। এর বাইরে সিঁথি বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ দলের অন্যান্য নেতৃবৃন্দের সঙ্গে বৈঠক করেন।

বিএনপির একাধিক সূত্র বলছে, আগের বার শর্মিলা রহমান এসেছিলেন খালেদা জিয়াকে সঙ্গে নিয়ে যেতে। সে সময় তার চিকিৎসার জন্য প্যারোলের একটি সমঝোতা ছিল চূড়ান্ত প্রায়। ধারণা করা হয়েছিল, খুব শিগগিরই খালেদা জিয়া প্যারোল পাবেন এবং দীর্ঘদিনের জন্য লন্ডনে যাবেন। যে কারণেই হোক শেষ পর্যন্ত প্যারোল হয়নি। পরে শর্শিলা যুক্তরাজ্যে ফিরে যান।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here