কথিত বন্দুকযুদ্ধে নিহত টেকনাফের পৌর কাউন্সিলর একরামুল হকের স্ত্রী আয়েশা বেগমের কাছে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে ফোন করা হয়েছে। আয়েশা বেগম জানান, রোববার বিকাল ৫টার দিকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে তার কাছে একটি ফোন আসে। এ ছাড়া স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকেও তাকে ফোন করা হয়েছিল।

তিনি বলেন, ‘যিনি ফোন করেছিলেন তার নাম-পরিচয় মনে নেই। তবে ফোনকারী নিজেকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের একজন কর্মকর্তা পরিচয় দিয়ে জানিয়েছেন, ঘটনার বিস্তারিত জানতে আয়েশার সঙ্গে আবারও যোগাযোগ করা হবে।

আয়েশা আরও জানান, গতকাল স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তাও তাকে ফোন করেন। ওই কর্মকর্তা জানিয়েছেন, ঘটনা সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে নিতে তার (আয়েশা) সঙ্গে যোগাযোগ অব্যাহত রাখবে মন্ত্রণালয়।

নিহত একরামুল হকের স্ত্রী-সন্তানদের সংবাদ সম্মেলন

জানা গেছে, কক্সবাজার জেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি ও কক্সবাজার পৌরসভার ভারপ্রাপ্ত মেয়র মাহবুবুর রহমান চৌধুরী স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে একরামুলের স্ত্রীর যোগাযোগ করিয়ে দিয়েছেন। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে ফোন করার জন্য আয়েশার মোবাইল নম্বরটি তার কাছে চেয়ে নেওয়া হয় বলে জানিয়েছেন একরামুলের বড় ভাই নজরুল ইসলাম।

তিন দিন ধরে দুই মেয়ে তাহিয়া ও নাহিয়ানকে নিয়ে চট্টগ্রামে মায়ের ভাড়া বাসায় রয়েছেন একরামের স্ত্রী আয়েশা বেগম।

একরামুল নিহতের বিষয়ে গত ২ জুন বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের সাংবাদিকদের বলেন, ‘কোনো ভালো কাজ, বৃহৎ কাজ, মহৎ কাজ করতে গেলে দুই-একটি ভুল হতে পারে।’

এ ছাড়া ৩ জুন রাজধানীর স্টামফোর্ড ইউনিভার্সিটির সিদ্ধেশরী শাখায় এক অনুষ্ঠানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল জানান একরামুল হকের পরিবারের দেওয়া অডিও রেকর্ডটি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে পৌঁছেছে। অডিও ক্লিপটি যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে। এ ছাড়া একজন ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে।’

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here