চাঁদা না দিলে মাদক মামলায় ক্রসফায়ারের হুমকি দেয়ায় রাজধানীর ভাটারা থানার এক উপ-পরিদর্শকসহ (এআই) চারজনের বিরুদ্ধে এক চা-দোকানি ঢাকা সিএমএম আদালতে একটি মামলা করেছেন।

মঙ্গলবার দুপুরে ঢাকা মহানগর হাকিম জাকির হোসেন টিপুর আদালতে মাকসুদা বেগম (৪৭) নামে ওই চা-পান দোকানি এ মামলা করেন।

বিচারক বাদির জবানবন্দি নিয়ে ডিবি (উত্তর) পুলিশের ডেপুটি কমিশনারকে একজন ইন্সপেক্টর পদমর্যাদার নিচে নয় এমন কর্মকর্তা দিয়ে অভিযোগ তদন্ত করে আগামী ৫ জুলাইয়ের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দিয়েছেন।

মামলার আসামিরা হলেন রাজধানীর ভাটারা থানার এসআই হাসান মাসুদ, কনস্টেবল জাকির (ড্রাইভার), অজ্ঞাতানামা এক কনস্টেবল ও অজ্ঞাতনামা একজন আনসার সদস্য।

মামলার অভিযোগে বলা হয়, বাদি মাকসুদা বেগম বারিধারার জে-ব্লকের ২০নং রোডের একজন চা-পান সিগারেট দোকানি। গত ৩০ মে আসামিরা বাদির দোকানে গিয়ে প্রতি মাসের ছয় হাজার টাকাসহ ঈদ বোনাস হিসেবে আরও চার হাজার টাকাসহ মোট ১০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করে। ব্যবসা মন্দা থাকায় এ মাসে ওই টাকা দিতে অস্বীকার করলে আসামিরা বাদির দোকান ভাঙচুর করে ছয় হাজার টাকার ক্ষতি করেন।

ওই সময় ৎফটো সাংবাদিক বাবুল ইসলাম রাজু দোকানের মালামাল নষ্ট করার কারণ জানতে চাইলে আসামিরা বলেন, ‘চাঁদার ১০ হাজার টাকা না দিলে যারা দোকানির পক্ষ নিবেন সবাইকে মাদকের মামলায় ফাঁসিয়ে ক্রসফায়ার দেয়া হবে।’

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here