মাকে ছাড়া একা থাকার প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় স্ত্রীর পরিকল্পনায় শাশুড়ি ও সম্বন্ধীর হাতে খুন হয়েছেন স্বামী। প্রায় এক বছর আগে মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে সংঘটিত এ হত্যাকাণ্ডে পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) তদন্ত প্রতিবেদনে এ তথ্য উঠে এসেছে।

মঙ্গলবার (৫ জুন) দুপুরে মৌলভীবাজার পিবিআই কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (পিবিআই) মো. শাহাদাত হোসেন, মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক মুহাম্মদ শিবিরুল ইসলাম ও পুলিশ পরিদর্শক আতিকুর রহমান।

সংবাদ সম্মেলনে পিবিআইয়ের কর্মকর্তরা জানান, ঘটনার আগের দিন রাতে নিহত ফারুকুলের স্ত্রী শিরিন আক্তারের (২৫) মায়ের বাসায় বসে ওই হত্যার পরিকল্পনা করা হয়। পরে ঘটনা ধামাচাপা দিতে ফারুকুল ইসলাম বাসার মালামাল সরাতে গিয়ে দুর্ঘটনায় মারা গেছেন বলে নাটক সাজান শিরিন।

গত বছরের ২৪ জুলাই শ্রীমঙ্গলের সুরভীপাড়া বিরাইমপুরের ফারুকুল ইসলামের ভাড়া নেয়া বাড়িতে তাকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে আঘাত করে ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়।

পুলিশ জানায়, বর্তমানে ফারুকুলের স্ত্রী শিরিন আক্তার, স্ত্রীর ভাই ইউনুছ হোসেন সুজন (২৭) ও শাশুড়ি মালেকা বেগমের (৫৫) বিরুদ্ধে মামলা চলছে। ফারুকুল ও শিরিনের সন্তান বর্তমানে তার দাদির জিম্মায় রয়েছে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here