বিশ্বকাপ নিয়ে যখন উন্মাদনা, উৎকণ্ঠা চলছে র‌্যাটিন আমেরিকার দেশ আর্জেন্টিনায়, তখন মাদকপাচারে সেই বিশ্বকাপকে ব্যবহার করেছে চোরাকারবারিরা। দেশের পারফর্মেন্স নিয়ে চিন্তিত ও উত্তেজিত সমর্থকদের কাছে সহজেই মাদক বিকিয়ে দিচ্ছিল তারা। এরজন্য তারা ব্যবহার করছিল বিশ্বকাপ ট্রফির রেপ্লিকা।

দেশটির রাজধানী বুয়েনস আয়ারসে ‘নারকোস দে লা কোপা’ নামের একটি চক্র বিশ্বকাপ শুরু আগ থেকেই কোকেন ও গাঁজা পাচার করা শুরু করে। এরজন্য তারা বিশ্বকাপের উত্তেজনাপূর্ণ পরিস্থিতিকেই বেছে নেয় এবং সহজে পাচার করতে ব্যবহার করে বিশ্বকাপ ট্রফির রেপ্লিকা। এর মাধ্যমেই তারা দেশের নানা প্রান্তে কোকেন পাচার করত।

পুলিশের নজড় এড়াতে এ অভিনব পন্থা অবলম্বণ করলেও শেষ রক্ষা হয়নি চক্রটির। কোকেন ও গাঁজা ভর্তি বিশ্বকাপ রেপ্লিকাও ধরা পড়ে গেছে। সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত ছবিতে দেখা গেছে, এসব রেপ্লিকার নিচের অংশে আর্জেন্টিনার পতাকার নীল রঙ লাগানো, সেটির তলা ভেঙ্গে বের করে আনা হয়েছে জব্দকৃত মাদক।

গত শুক্রবার রাতে এ চক্রের ছয়জন সদস্যকে আটক করে পুলিশ। আটককৃতদের মধ্যে দুইজন নারী রয়েছে। তাদের কাছে থাকা বিশ্বকাপের রেপ্লিকা থেকে জব্ধ করে ১০ কেজি কোকেন ও ২০ কেজি মারিজুয়ানা। একইসাথে তাদের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয় ১২ লাখ ডলার সমপরিমান অর্থ।

নিরাপত্তা বিষয়ক মন্ত্রী ক্রিশ্চিয়ান রিটোন্ডো বলেন, অভিযুক্তদের কঠোর দণ্ডাদেশ আরোপ করা হবে। যাতে তারা পরবর্তীতে এ ধরণের ব্যবসার সাথে জড়িত না হয়। তাদেরকে অবশ্যই কারাগারে যেতে হবে এবং শাস্তি ভোগ করতে হবে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here