রাশিয়া বিশ্বকাপের নক-আউট পর্বে উঠা নিশ্চিত করতে হলে বুধবার রাতে দক্ষিণ কোরিয়ার বিপক্ষে জিততেই হবে জার্মানিকে। তাই জয়ের কোনো বিকল্প দেখছে না দলের শিষ্যরা। একমাত্র জয়ই পারে জার্মানদের সরাসরি দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠার টিকিট এনে দিতে।

ড্র করেও জার্মানির দ্বিতীয় রাউন্ডে উঠা সম্ভব। তবে দুটি সেক্ষেত্রেই দুই ম্যাচ জিতে গ্রুপের শীর্ষে থাকা মেক্সিকোর কাছে সুইডেনের হারের প্রত্যাশায় থাকতে হবে। কোনো ক্রমে মেক্সিকো-সুইডেন ড্র করলে বা সুইডেন জিতে গেলে তখন গোল ব্যবধানের দিকে তাকিয়ে থাকতে হবে জার্মানিকে। বড় ব্যবধানে জিততে হবে তারে। কারণ সমান তিন পয়েন্ট করে নিয়ে এখন জার্মানি-সুইডেন দুদলের গোল ব্যবধান সমান (শূন্য)।

মানে প্রতিপক্ষের জালে দি গোল দিয়ে দুদল দু গোল হজম করেছে। যদি সুইডেন হারে মেক্সিকোর কাছে আর এশিয়ার অন্যতম ফুটবল পরাশক্তির কাছে হার মানে জার্মানি। তখন যে মাথা নিচু করেই দেশে ফিরতে হবে মেসুত ওজিলদের। তা কিন্তু নয়। গোল ব্যবধান তখন মুখ্য হয়ে দাঁড়াবে। তা না হলে ফ্লেয়ার প্লে-র বিবেচনায় প্রি-কোয়ার্টার ফাইনালে উঠে যাবে যেন কোনো একটি দল।

দ্বিতীয় ম্যাচ জেতায় কিছু স্বস্তি ফিরে আসলেও জার্মানির সামনে যখন এমন কঠিন পরীক্ষা। দুশ্চিন্তা আশঙ্কার কালো মেঘ যেন কিছুতেই কাটছে না জার্মান সমর্থকদের আকাশ থেকে। কারণ ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নদের পারফরম্যানস যেমনটা হওয়ার রকার ছিল। চার বারের চ্যাম্পিয়নদের ওপর ভক্ত সমর্থকদের যেমনটা প্রত্যাশা ছিল। উদ্বোধনী ম্যাচে ঠিক তেমন ভাবে সমর্থকদের প্রত্যাশা পূরণ করতে পারেননি টমাস মুলাররা। উল্টো ফুটবল মহাযজ্ঞে উড়তে থাকা দুরন্ত মেক্সিকোর কাছে ১-০ গোলে হার মানে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নরা। দ্বিতীয় ম্যাচে সুইডেনের বিপক্ষে নিজেরে গতিময় ফুটবলের ছন্দে ফিরলেও জয় ছিনিয়ে নিতে বেশ বেগ পেতে হয়েছে। টনি ক্রুসের শেষ মুহূর্তের গোলে জয় পায় জার্মানি।

এবার গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচের পালা। এখানে দেখা যাবে চিরায়ত জার্মান গতির ফুটবল?

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here