ভারতে নির্বাসিত বাংলাদেশের বিতর্কিত লেখিকা তসলিমা নাসরিন নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টে এক স্ট্যাটাসে ভুয়া মুক্তিযোদ্ধাদের কড়া সমালোচনা করেছেন। স্ট্যাটাসে তিনি নিজেকে মুক্তিযোদ্ধা বলেও দাবি করেন।

মঙ্গলবার দেওয়া ওই স্ট্যাটাসে তসলিমা লেখেন, ‘মোটেও যারা মুক্তিযোদ্ধা ছিল না একাত্তরে, মুক্তিযোদ্ধাদের সঙ্গে যাদের কখনও দেখা হয়নি, তাদের অনেকেই নাকি নিজেদের মুক্তিযোদ্ধা দাবি করে। আমি তো তা হলে তাদের চেয়েও বড় মুক্তিযোদ্ধা।’

মুক্তিযুদ্ধকালীন স্মৃতিচারণ করে তিনি আরও লেখেন- ‘বয়স ছিল ৯ বছর। দাপুনিয়ার একটি বাড়ির মাটির মেঝেতে খড় পেতে ঘুমোতাম। খড়ের তলায় থাকত মুক্তিযোদ্ধাদের রাইফেল। রাইফেলগুলো আমরা লুকিয়ে রাখতাম। কাউকে বলতাম না রাইফেলের কথা। বাড়িটা আমার মামার বন্ধুর বাড়ি ছিল। আমরা যুদ্ধের সময় ওই বাড়িতে আশ্রয় নিয়েছিলাম।

আমার মামা তখন যুদ্ধ করছে। মামার বন্ধুও। ওই বাড়িতে গভীর রাতে যখন মুক্তিযোদ্ধারা খেতে আসত, বাড়ির লোকেরা তাদের খাবার দিত। আমিও দৌড়ে দৌড়ে ডালের বাটি ভাতের থালা রান্নাঘর থেকে নিঃশব্দে নিয়ে আসতাম। ওরা কুপির আবছা আলোয় দ্রুত খেয়ে উঠত। বিস্মিত আর মুগ্ধ চোখে ওদের দিকে তাকিয়ে থাকতাম। ওরা যে গভীর রাতে আসত, এ কথাও আমরা কাউকে বলতাম না।’

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here