বিয়ে একটি পারিবারিক বন্ধন। বিয়ের মাধ্যমে নর-নারী এই বন্ধনে আবদ্ধ হয়। প্রাপ্তবয়স্ক হওয়ার পর থেকে নিজের প্রয়োজনেই বিয়ের স্বপ্ন দেখেন নারীরা। আসুন জেনে নেই কী সব কারণ-

সারা জীবন চলার জন্য মনের মানুষ

নারীরা চায় স্থায়ী ঠিকানা। বিয়ে হচ্ছে স্থায়ী বন্ধন, যা চাইলেও ছিন্ন করা যায় না কিংবা ছিন্ন করা এতটা সহজ নয়। একজন স্বামী কিংবা স্ত্রী কেবল সুখের সময়ের সঙ্গী নয়, বরং দুঃখের দিনেরও সমান ভাগীদার। তাই নারীর সারা জীবন চলার জন্য মনের মত স্থায়ী সঙ্গী চান।

নতুন জীবন

বিয়ের পর নতুন সংসার গোছানো, সঙ্গীর সঙ্গে ভালোবাসার সম্পর্ক গড়ে তোলার মাধ্যমে নতুন জীবন শুরু করে নারীরা।

বাস্তববাদী

বিয়ের কারণে একজন মানুষ বাস্তববাদী হয়ে ওঠে। কারণ নতুন জীবনের চলার পথে সে ভবিষ্যৎ নিয়ে ভাবতে শেখে। ফলে নতুন জীবনে পা রেখেই উন্নতির চেষ্টা করতে থাকে। বিয়ের পরে মানুষের জীবনও অনেক গোছাল হয়।

মা হওয়া

একজন নারী যখন প্রাপ্তবয়স্ক হয় আর তার সংসার করার মানসিকতা জন্মে, তখন থেকেই নারীরা মা হতে চান। কারণ জন্ম থেকে নারীদের মধ্যে মাতৃত্ব গড়ে ওঠে। মা হওয়ার স্বপ্ন দেখেন প্রত্যেক নারী।

শারীরিক সম্পর্ক

নিরাপদ যৌন সম্পর্ক কিন্তু বিয়ের মাধ্যমেই সম্ভব। এতে যৌনবাহিত রোগ হওয়ার সম্ভাবনা কমে যায়। এছাড়াও একজন মানুষের সঙ্গে যৌন সম্পর্কে বিশ্বস্ত থাকার ব্যাপারটি মানুষ হিসেবে আমাদের চারিত্রিক উন্নতি ঘটায়।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here