বিকৃত কাম অবোধ পশুকেও রেহাই দেয় না। তেমনি এক অভিযোগ উঠেছে কলকাতার লেকটাউনে পোষা কুকুর মালিকের বিরুদ্ধে। নিজের পোষা কুকুরকে ধর্ষণের অভিযোগে কমলেশ মাহাতো নামের ওই কুকুর মালিককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

ভারতীয় সংবাদ মাধ্যমে জানানো হয়, সারমেয় নামে নেড়ি কুকুরটি কমলেশের পোষ্য ছিল। গত রোববার রাতে পোষ্যের মুখ বেঁধে যৌন নিগ্রহ করে কমলেশ। ঘটনাটি প্রতিবেশীরা জানালা দিয়ে দেখে ফেলে। পরে এক স্বেচ্ছাসেবী সংস্থাকে খবর দিলে তাদের পক্ষ থেকে লেকটাউন থানায় খবর দেয়া হয়।

খবর অনুযায়ী পুলিশ এসে কমলেশ মাহাতোকে গ্রেফতার করেছে এবং সারমেয়কে (পোষ্য কুকুরের নাম) উদ্ধার করে মেডিকেল পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে।

এটাই শেষ নয়, গত জুনেও উলুবেড়িয়ার শ্যামপুর থানার বাড়গ্রাম পূর্বপাড়ায় প্রতিবেশীর গরু চুরি করে ধর্ষণের অভিযোগ ওঠে স্থানীয় এক যুবকের বিরুদ্ধে। ঘটনার পরই সুজলা নামের এক যুবককে মারধর করে পুলিশে দেয়া হয়। তার বিরুদ্ধে ৩৭৭ ধারায় অস্বাভাবিক যৌনতার অভিযোগে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here