মস্কোর লুঝনিকি স্টেডিয়ামে গত রোববার বিশ্বকাপের ফাইনাল শেষে চ্যাম্পিয়ন ফ্রান্স ও রানারআপ ক্রোয়েশিয়ার খেলোয়াড়, কোচিং স্টাফদের মেডেল দেওয়া হয়। পুরস্কার প্রদান অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাশিয়ান প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন, ফিফা প্রেসিডেন্ট জিয়ান্নো ইনফানতিনো, ক্রোয়েশিয়ার প্রেসিডেন্ট কোলিন্দা গ্র্যাবার এবং ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল ম্যাকরন। আর তাদের সামনে থেকেই নাকি চুরি হয়ে গেছে একটি মেডেল।

জানা গেছে, তিন প্রেসিডেন্ট যখন পুরস্কার বিতরণ করছিলেন সেখানে তাদের পাশেই ছিলেন এক নারী। যার পরিচয় লুকিয়ে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে তিনিই হলেন মেডেল চুরির হোতা।

একটি ভিডিও ভাইরাল হয়েছে, যেখানে দেখা যায় সেই নারী একটি মেডেল নিজের পকেটে লুকিয়ে রাখছেন। সংবাদমাধ্যমগুলোতে বলা হচ্ছে, তিনি মেডেলটি সকলের অগচরে লুকিয়ে ফেলেন।

ফ্রান্সের বিশ্বকাপ জয়ের নায়কদের মঞ্চে ডেকে সোনার মেডেল পড়িয়ে দেওয়া হয়। অ্যান্তোনিও গ্রিজম্যানের পর ডাকা হয় দেশটির কোচ দিদিয়ের দেশমকে। গ্রিজম্যানকে মেডেল পড়িয়ে দেন পুতিন, এরপরই সেই ঘটনা। বাড়তি মেডেলটি কিভাবে যেন হাতে চলে যায় সেই নারীর। তিনি সেটি নিজের পকেটে ঢুকিয়ে ফেলেন। এরপর দেশমকে তার মেডেলটি পড়িয়ে দেওয়া হয়।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here