জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৭ মার্চের ভাষণকে স্মরণীয় করে রাখতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রোকেয়া হলে নির্মিত ‘৭ মার্চ ভবন’ উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

শনিবার (১ সেপ্টেম্বর) সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ভবনটি উদ্বোধন করেন তিনি। এ সময় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য ড. মো. আখতারুজ্জামান, উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ সামাদ, শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ, তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনুসহ ঢাবি প্রক্টর অধ্যাপক ড. একেএম গোলাম রব্বানীসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে ২০১২ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসিক সমস্যা সমাধানে ও বিশ্ববিদ্যালয়ের অবকাঠামো উন্নয়নে প্রধানমন্ত্রী ১২টি ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন ও উদ্বোধন করেছিলেন। ভবনগুলোর মধ্যে অন্যতম ছিল রোকেয়া হলের ‘৭ মার্চ ভবন’। ১১ তলাবিশিষ্ট এ ভবনে প্রায় এক হাজার ছাত্রী আবাসন সুবিধা পাবেন।

অন্যদিকে প্রধানমন্ত্রীকে স্বাগত জানাতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে আঁকা হয়েছে ১৯৭১ ফুট দৈর্ঘ্য এবং ৭ ফুট প্রস্থের আলপনা। মুক্তিযুদ্ধ ও বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণের দিকটি বিবেচনায় নিয়ে এ আলপনা আঁকা হয়।

প্রধানমন্ত্রীর আগমনকে কেন্দ্র করে বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেওয়া হয়।

২০১৩ সালেও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে এসেছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ওই বছরের ১৪ নভেম্বর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) নবনির্মিত আবাসিক হল ‘বিজয় একাত্তর’ উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী।

বিশ্ববিদ্যালয়ের মাস্টারদা সূর্যসেন হল এবং মুক্তিযোদ্ধা জিয়াউর রহমান হলের মাঝখানে অবস্থিত ১১ তলা বিশিষ্ট এ হল দেশের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে সর্ববৃহৎ।

নতুন এ হল উদ্বোধনের পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী তরুণ শিক্ষকদের আবাসনের জন্য নির্মিত শহীদ আবুল খায়ের ভবন, এমবিএ ভবন (ইস্টার্ন উইং), চতুর্থ শ্রেণির কর্মচারীদের জন্য বঙ্গবন্ধু টাওয়ার ও জ্যেষ্ঠ শিক্ষকদের জন্য নির্মিত আবাসিক ভবনের ফলক উন্মোচন করেন প্রধানমন্ত্রী।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here