প্রথমবারের মতো লা লিগায় সুযোগ পেয়েছে হুয়েসকা। নিজেদের তৃতীয় ম্যাচে মুখোমুখি বর্তমান চ্যাম্পিয়ন বার্সেলোনা। ইতিহাসের অন্যতম সফল দলটির বিপক্ষে খেলতে নেমেই চমক। ইংলিশ ক্লাব ওয়াটফোর্ড থেকে লোনে আসা ১৯ বছর বয়সী চুচো হার্নান্দেজের গোলে লিড পেলো আরাগনের দলটি।

কলম্বিয়ার অনূর্ধ্ব ২০ দলের এই ফরোয়ার্ড তৃতীয় মিনিটের মাথায় বল জড়ান ব্লাউগ্রানাদের জালে। যদিও থমকে যায়নি বার্সা। ১৬তম মিনিটেই গোল শোধ করেন লিওনেল মেসি। শেষ পর্যন্ত ৮-২ গোলে জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে ভালভার্দের শিষ্যরা।

রবিবার (২ সেপ্টেম্বর) রাতে ক্যাম্প ন্যুতে কাতালানদের হয়ে অধিনায়ক মেসি ও লুইস সুয়ারেজ করেন দুটি করে গোল। উসমানে ডেম্বেলে, ইভান রাকিটিচ ও জর্দি আলবা করেছেন একটি করে গোল। আরেকটি গোল ছিল আত্মঘাতী। অন্যদিকে সফরকারীদের হয়ে চুচো ও আলেজান্দো গাল্লার ফালুগুয়েরা করেন একটি করে গোল।

ম্যাচের ২৪তম মিনিটে ডিফেন্ডার জর্জ পুলিডোর ভুলে গোল হজম করতে হয় হুয়েসকার। প্রথমার্ধ শেষ হবার ৬ মিনিট আগে ফের গোল পায় স্বাগতিকরা। ৩৯তম মিনিটে গোল করে উরুগুইয়ান ফরোয়ার্ড সুয়ারেজ। তিন মিনিট পরই ফালুগুয়েরার গোল করেন। এতে ব্যবধান দাঁড়ায় ৩-২ এ।

দ্বিতীয়ার্ধে নেমে প্রথমার্ধের মতো লড়াইয়ের আভাস দিতে থাকে আর্জেন্টাইন কোচ লিও ফ্রাঙ্কোর শিষ্যরা। তবে ৪৮ মিনিটের মাথায় ফ্রান্সের হয়ে বিশ্বকাপ জয়ী বার্সা উইঙ্গার ডেম্বেলের গোলে ব্যবধান বৃদ্ধি পায়। চার মিনিট পর ফের গোল। এবার দলকে ৫-২তে এগিয়ে দেন ক্রোয়েট মিডফিল্ডার রাকিটিচ। এতে ম্যাচ থেকে দূরে ছিটকে যায় নবাগত দলটি।

৬১ মিনিটে নিজের দ্বিতীয় গোলটি করেন আর্জেন্টাইন মহাতারকা মেসি। ৮১তম মিনিটে গোল উৎসবে যোগ দেন স্প্যানিশ তারকা আলবা। আর ম্যাচের একদম শেষ প্রান্তে এসে হুয়েসকার কফিনে শেষ পেরেকটি গেড়ে নিজের দ্বিতীয় গোল করেন সুয়ারেজ।

বিশাল এই জয়ের পর তিন ম্যাচে ১০ গোল দিয়ে ৯ পয়েন্ট নিয়ে বার্সা চলে এসেছে স্প্যানিশ লিগের পয়েন্ট টেবিলের সবার উপরে। সমান সংখ্যক ম্যাচে ৮ গোল দিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রিয়াল মাদ্রিদ।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here