একনেকে সারাদেশে ‘নির্বাচিত বেসরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়সমূহের উন্নয়ন’ নামে একটি প্রকল্পের অনুমোদন দিয়েছে জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেক)। প্রকল্পের মোট ব্যয় ধরা হয়েছে ৫ হাজার ৯১৮ কোটি ৬৩ লাখ টাকা।

মঙ্গলবার (১১ সেপ্টেম্বর) শেরেবাংলা নগরে পরিকল্পনা কমিশনের এনইসি সম্মেলন কক্ষে একনেক সভায় প্রকল্পটির অনুমোদন দেওয়া। সভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সভাপতিত্ব করেন। সভা শেষে পরিকল্পনা মন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

সভায় নতুন ও সংশোধিত ১৮টি প্রকল্পের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এতে ব্যয় হবে ১৭ হাজার ৭৮৬ কোটি ৯৫ লাখ টাকা।

১১ সেপ্টেম্বর, মঙ্গলবার রাজধানীর শেরে বাংলা নগরে একনেক চেয়ারপারসন ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে একনেক সভায় এসব প্রকল্পের অনুমোদন দেওয়া হয়।

সভা শেষে প্রকল্প বিষয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন পরিকল্পনা মন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।

মন্ত্রী জানান, প্রকল্পগুলোতে সরকার অর্থ দেবে ১৩ হাজার ৮১৩ কোটি ৪৪ লাখ টাকা। প্রতিষ্ঠানগুলোর নিজস্ব তহবিল থেকে ব্যয় হবে ৪২ কোটি ৬২ লাখ টাকা। আর প্রকল্পগুলোতে সাহায্য আসবে ৩ হাজার ৯৩০ কোটি ৮৯ লাখ টাকা।

মাদ্রাসা ভবন নির্মাণের জন্য ৩০০ এমপি শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে কারিগরি ও মাদ্রাসা বিভাগে ডিও (ডিমান্ড অব অর্ডার) দেন। স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরা সংশ্লিষ্ট এলাকার মাদ্রাসার দৈন্যদশা ও জরাজীর্ণতা উল্লেখ করে জরুরি ভিত্তিতে বিদ্যমান মাদ্রাসায় নতুন ভবন নির্মাণের আবেদন করেন। এর ভিত্তিতেই ১ হাজার ৬৮১টি মাদ্রাসা নির্মাণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। প্রকল্পের বাস্তবায়ন মেয়াদ ধরা হয়েছে ২০২১ সালের জুন পর্যন্ত। এর আওতায় প্রতি এমপি প্রায় ২০ কোটি টাকার মাদ্রাসা ভবন উন্নয়ন করতে পারবেন।

আইসিটিসহ সব ধরনের আধুনিক শিক্ষা দেওয়ার ব্যবস্থা রাখা হবে এসব নতুন ভবনে। কম্পিউটার ল্যাবও থাকবে এসব মাদ্রাসা ভবনে। প্রতিটা ভবন হবে পাঁচতলা, নীচতলা ফাঁকা থাকবে। তারপরও শিক্ষার্থীদের চাহিদার ওপর নির্ভর করবে ভবনের আকার-আয়তন। প্রাথমিকভাবে প্রতি এমপি প্রায় ছয়টি করে মাদ্রাসার বরাদ্দ পাবেন।

প্রকল্পের আওতায় ১ হাজার ৬৮১টি মাদ্রাসা ভবনে নতুন টেবিল চেয়ার কেনা হবে। বৃদ্ধি করা হবে স্যানিটেশন, পানি ও বৈদ্যুতিক সুবিধা। এ প্রকল্পসহ একনেক সভায় মোট ১৮টি প্রকল্পের অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। প্রকল্পগুলোর মোট ব্যয় ১৭ হাজার ৭৮৭ কোটি টাকা।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here