ফের সোশ্যাল মিডিয়ায় আক্রমণের মুখে অভিনেত্রী স্বরা ভাস্কর। এবার এই অভিনেত্রীকে ‘যৌনকর্মী’ বলে অপমান করলেন পরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রী। এজন্য অবশ্য খেশারতও দিতে হয়েছে তাকে। সোশ্যাল মিডিয়ার নিয়ম ভাঙার অপরাধে ওই পরিচালকের অ্যাকাউন্ট বন্ধ করে দিয়েছ টুইটার কর্তৃপক্ষ।

স্বরার অভিযোগের ভিত্তিতে পরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রীর অ্যাকাউন্ট ব্লক করে দেওয়ায় টুইটার কর্তৃপক্ষতে ধন্যবাদও জানিয়েছেন আবেদনময়ী এ নায়িকা। এমন ঘটনা এই প্রথমবার নয়, এর আগে বহুবার সোশ্যাল সাইটে অকারণে সোশ্যাল সাইটে আক্রমণের মুখে পড়তে হচ্ছে স্বরাকে।

সম্প্রতি, ভিরে দি ওয়াডিং ছবিতে একটি স্বমেহনের দৃশ্যে অভিনয় করতে দেখা যায় স্বরাকে। ওই দৃশ্যে অভিনয় করার জন্য বারবার সোশ্যাল সাইটে বিভিন্ন লোকজনের অশ্লীল মন্তব্য, আক্রমণের মুখে পড়তে হয়েছে স্বরাকে। দুদিন আগেই স্বরা ভাস্কারের সিনেমার ওই হস্তমৈথুনের দৃশ্য টুইটারের মাধ্যমে স্বরার বাবা সি উদয় ভাস্করের কাছে পাঠানো হয় এবং প্রশ্ন করা হয় এসব কী হচ্ছে স্যার? আর এর পরই অগ্নিবীর পলাশ নামে ওই ব্যক্তিকে একহাত নেন স্বরা।

কোনো দ্বিধা না করে ওই ব্যক্তিকে স্বরা স্পষ্ট জানান, ‘আমি একজন অভিনেত্রী, আর পলাশ, এই দৃশ্যে আমি যেভাবে অভিনয় করেছি তাতে দেখানো হয়ে আমি একটি কম্পক যন্ত্র ব্যবহার করছি। আর এবিষয়ে আমার বাবাকে জিজ্ঞাসা করার কোনও প্রয়োজন নেই, কোনও কিছুতে সংশয় থাকলে আপনি আমাকেই সরাসরি প্রশ্ন করতে পারেন। আর যেকেউ যদি একজন বয়স্ক ব্যক্তির সঙ্গে এধরনের নোংরা ব্যবহার করে সেটা মোটেও বীরত্বের কাজ নয়।’

এই ঘটনা মিটতে না মিটতেই সোমবার পরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রী স্বরাকে একজন ‘যৌনকর্মী’ বলে অপমান করেন। ঘটনার পরই বিষয়টি নিয়ে মাইক্রোব্লগিং সাইট অর্থাৎ টুইটার কর্তৃপক্ষের কাছে অভিযোগ জানান অভিনেত্রী স্বরা।  আর এর পরেই পরিচালক বিবেক অগ্নিহোত্রীর অ্যাকাউন্ট ব্লক করে টুইটার কর্তৃপক্ষ।

অন্যদিকে, সম্প্রতি কেরলার এর নানকে ধর্ষণের ঘটনায় জলন্ধরের বিশপ ফ্রান্কো মুলাকলকে গ্রেফতার করা হয়।  সেই ঘটনা প্রসঙ্গে ওই নান-কে (ক্রিশ্চিয়ান সন্ন্যাসিনী) যৌনকর্মী বলে অপমান করেন কেরালার বিধায়ক পিসি জর্জ। এই ঘটনায় ওই বিধায়কতেও একহাত নিতে ছাড়েননি স্বরা ভাস্কর। স্বরা লেখেন, ‘এটা ভীষণই বিরক্তিকর ও লজ্জাজনক।  জাতপাতের বিভাজন টেনে দেশকে ভাগ করে দেওয়ার চেষ্টা চলছে ।’

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here