ফিলিপাইনের উত্তরাঞ্চলের ওপর দিয়ে বয়ে যাওয়া ঘূর্ণিঝড় মাংখুটে ব্যাপক হতাহত ও ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া গেছে। এ ঝড়ে নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৫৯। এছাড়া আড়াই লাখ টনের বেশি ধান বিনষ্ট হয়েছে বলে জানিয়েছে স্থানীয় কর্তৃপক্ষ।

শনিবার স্থানীয় সময় রাত ১টা ৪০ মিনিটের দিকে ঘণ্টায় ২০০ কিলোমিটার বেগে ফিলিপাইনের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় বাগাওতে আঘাত হানে ঘূর্ণিঝড় মাংখুট। এর আঘাতে ফিলিপাইনে ৪৯ জন নিহত হয়েছে। এর আগে নিহতের সংখ্যা ২৫ বলে জানানো হয়েছিল। এদের বেশিরভাগই ভারি বৃষ্টির ফলে সৃষ্ট ভূমিধসে চাপা পড়ে মারা গেছে।

নিহতদের ২০ জন দেশটির প্রধান দ্বীপ লুজনের কর্দিলিয়ারা অঞ্চলের বাসিন্দা। ফিলিপাইনের নুয়েভো ভিজকাইয়া প্রদেশের আশপাশে ও ইলোকস সুর প্রদেশে মারা গেছে বাকিরা।

এই ঘূর্ণিঝড়ে হতাহতের পাশাপাশি ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতিরও খবর পাওয়া গেছে। সোমবার ফিলিপাইনের কৃষি বিভাগ জানায়, শনিবারের ওই ঘূর্ণিঝড়ে ১২০৪ টন চালসহ ২ লাখ ৫০ হাজার ৭৩০ টন ধান নষ্ট হয়ে গেছে। সবমিলিয়ে এই ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ ৯২ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।

ফিলিপাইন হচ্ছে বিশ্বের প্রধান চাল আমদানিকারক দেশ। টাইফুন মাংখুটে এই ক্ষতির কারণে দেশটির চাল উৎপাদন ও রপ্তানি ক্ষতিগ্রস্ত হবে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এদিকে রোববার বিকালের পর ঘণ্টায় ১০০ কিলোমিটার বাতাসের বেগ নিয়ে চীনের সবচয়ে জনবহুল প্রদেশ গুয়াংডংয়ে আঘাত হানে ঘূর্ণিঝড় মাংখুট। এখানে মারা গেছে আরো দুইজন।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here