দেরাদুনের তিক্ততা আরব আমিরাতে ভুলতে চায় বাংলাদেশ। আফগানিস্তানের স্পিন আক্রমণ নিয়ে ভয় পাচ্ছে না টাইগাররা। ওডিআই ফরম্যাট বলেই আত্মবিশ্বাস বেশি মাশরাফীদের। আমিনুল ইসলাম বুলবুল, এ ম্যাচে বাংলাদেশকে এগিয়ে রাখছেন। তবে প্রতিপক্ষের সামর্থ্যকে খাটো করে দেখতে নারাজ টাইগারদের সাবেক অধিনায়ক।

আফগানিস্তানের শক্তি স্পিন আক্রমণ। রাশিদ-মুজিবের বৈচিত্র্য প্রতিপক্ষের জন্য আতঙ্ক, নাবিও যথেষ্ট কার্যকরী। আফগান স্পিন ত্রয়ীতে ধরাশায়ী লঙ্কান সিংহ। আবুধাবিতে ওই ম্যাচে তিন স্পিনারের দখলে ছয় উইকেট। টাইগারদের জন্য সতর্কবার্তা নিঃসন্দেহে।

গণমাধ্যমে ঘুরেফিরে একই প্রশ্ন। রাশিদ-মুজিবদের মোকাবিলায় কি পরিকল্পনা টাইগারদের? দেরাদুনের টি টোয়েন্টি সিরিজ মনে ভয় ধরিয়ে দিয়েছে। তবে ফরম্যাট যখন ওডিআই, তখন আত্মবিশ্বাসী লাল-সবুজ।

দুই দল কোথায় কে এগিয়ে? স্পিন আক্রমণে প্রতিপক্ষ বধের ছক আফগানিস্তানের। সাকিবকে বিশ্রাম দিলে স্পিনে ধার কমবে টাইগারদের। মেহেদী মিরাজের ওপর থাকবে চাপ, সুযোগ পেলে নাজমুল অপু হতে পারেন এক্স ফ্যাক্টর।

পেইসে মাশরাফী-মুস্তাফিজ-রুবেল বাংলাদেশকে এগিয়ে রাখছেন। অভিজ্ঞতা বিবেচনায় ব্যাটিংয়েও দুই দলের পার্থক্য স্পষ্ট। যদিও সেরা একাদশ না পাওয়ায়, তরুণদের কাঁধে বাড়তি দায়িত্ব।

প্রথম ম্যাচে দুই দলই জিতেছে বড় ব্যবধানে। চোট সমস্যায় অস্বস্তি টাইগার শিবিরে অন্যদিকে আফগানরা পরিচিত কন্ডিশনে বাজি মারার অপেক্ষায়।

বাংলাদেশের সম্ভাব্য একাদশ

১. নাজমুল হোসেন শান্ত

২. লিটন কুমার দাস

৩. সাকিব আল হাসান/ আরিফুল হক

৪. মোহাম্মদ মিঠুন

৫. মুমিনুল হক

৬. মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ

৭. মোসাদ্দেক হোসেন সৈকত/ নাজমুল ইসলাম অপু

৮. মেহেদি হাসান মিরাজ

৯. মাশরাফি বিন মর্তুজা

১০. রুবেল হোসেন

১১. মোস্তাফিজ/ আবু হায়দার রনি

 

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here