ভারতীয় সেনা প্রধান বিপিন রাওয়াতের বক্তব্যের জবাবে এবার যুদ্ধের প্রসঙ্গ ছুঁড়ে দিল পাকিস্তান৷ বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত খবর থেকে জানা যায়, গতকাল শনিবার পাকিস্তানের ডিজি আইএসপিআর মেজর জেনারেল আসিফ গফুর জানিয়েছেন, ‘পাকিস্তান একটি পরমাণু শক্তিসম্পন্ন দেশ এবং সে সর্বদা যুদ্ধের জন্য প্রস্তুত৷ পাকিস্তানের শান্তির বার্তাকে কেউ যেন দুর্বলতা মনে না করে, এমনি হুঁশিয়ারি দিয়েছে প্রতিবেশী রাষ্ট্র৷’

প্রসঙ্গত, ভারতের সেনাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত শনিবার বলেন, ‘পাকিস্তানের সেনা এবং সন্ত্রাসবাদীদের উচিত শিক্ষা দেওয়ার সময় চলে এসেছে৷ শান্তির বার্তা এবং সন্ত্রাস একসঙ্গে চলতে পারে না বলেই মত তার৷ সেনাবাহিনীকে যথেষ্ট স্বাধীনতা দেওয়া রয়েছে, জবাব দেওয়ার জন্য তারা প্রস্তুত এবং সরকারও পাশে রয়েছে৷’

উল্লেখ্য, ভারতের সঙ্গে মুখোমুখি বৈঠক চেয়েছিলেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। দুই দেশের বিদেশমন্ত্রীর বৈঠকের আবেদন জানিয়ে তিনি চিঠি লিখেছিলেন নরেন্দ্র মোদিকে। কিন্তু কাশ্মীরে রক্তপাতের প্রতিবাদে সেই বৈঠকের সম্ভাবনা বাতিল করে দেয় ভারত। এরপরই সুর চড়ালেন ইমরান। ভারতের কোনও দূরদর্শিতা নেই বলে উল্লেখ করলেন তিনি।

শুক্রবার বৈঠক বাতিলের কথা জানিয়ে দেয় কেন্দ্র। এরপর শনিবার ট্যুইট করেন পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। তিনি লেখেন, ‘ভারতের নেতিবাচক উত্তরে আমরা হতাশ। শান্তি আলোচনা পুনরায় শুরু করার জন্য আহ্বান জানানো হয়েছিল।’ তিনি আরও লেখেন, সারাজীবনে তিনি এমন অনেক ক্ষুদ্র মাপের লোককে দেখেছেন যারা, বড় দফতরের দায়িত্বে থাকেন। তাদের কোনও দূরদর্শিতা থাকে না বলেও উল্লেখ করেছেন ইমরান।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here