বাংলাদেশে নিযুক্ত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের রাষ্ট্রদূত মার্শা বার্নিকাট বলেছেন- ‘আমরা তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনুর গণমাধ্যম প্রতিনিধিদের সাথে ডিএসএ নিয়ে আলোচনার আহ্বানকে স্বাগত জানাইI আমরা বাংলাদেশ সরকারকে উৎসাহিত করি এ আইনের পরিবর্তন বিবেচনা করতে যাতে এটি বাংলাদেশের সংবিধান এবং মানব, নাগরিক এবং রাজনৈতিক অধিকারের প্রতি বাংলাদেশের আন্তর্জাতিক অঙ্গীকারের সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণ হয়I’

বাংলাদেশের ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন নিয়ে আজ রোববার (৩০ সেপ্টেম্বর) মার্কিন দূতাবাসের ওয়েবসাইটে দেয়া এক বিবৃতিতে তিনি একথা বলেন।

বিবৃতিতে তিনি আরও বলেন, ‘যুক্তরাষ্ট্র আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের উদ্বেগের সাথে একমত পোষণ করে যে, সম্প্রতি পাস হওয়া ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন (ডিএসএ) বাকস্বাধীনতার দমন এবং অপরাধযোগ্য হিসেবে ব্যবহৃত হতে পারে, যা সর্বোপরি বাংলাদেশের গণতন্ত্র, উন্নয়ন এবং সমৃদ্ধিকে ক্ষতিগ্রস্ত করবেI’

প্রসঙ্গত, দেশজুড়ে সাংবাদিক, পেশাজীবী ও রাজনীতিকদের বিরোধিতার মধ্যেই গত ১৮ সেপ্টেম্বর জাতীয় সংসদে ডিজিটাল নিরাপত্তা বিল কণ্ঠভোটে পাস হয়। এই আইনের কারণে জনগণের মতপ্রকাশের স্বাধীনতা ও স্বাধীন সাংবাদিকতা বাধাগ্রস্ত হবে বলে সাংবাদিকসহ বিভিন্ন পক্ষের আপত্তি রয়েছে। এখন রাষ্ট্রপতি স্বাক্ষর করলে বিলটি আইনে পরিণত হবে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here