প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘যারা ভবিষ্যতে গবেষণা করতে চাইবেন, তাদের জন্য মূল্যবান দলিল হিসেবে প্রতীয়মান হবে জাতির পিতার বইগুলো। বাংলাদেশের স্বাধীনতার ইতিহাস-উপমহাদেশের ইতিহাস জানা যাবে এই বইয়ে।’

তিনি আজ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আত্মজীবনীমূলক গ্রন্থ ‘অসমাপ্ত আত্মজীবনী’র স্প্যানিশ ভাষায় অনূদিত সংস্করণের মোড়ক উন্মোচন কালে এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী আজ বৃহস্পতিবার সকালে গণভবনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে এ বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করেন। ঢাকায় নিযুক্ত স্পেন দূতাবাসের উদ্যোগে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

প্রধানমন্ত্রী ‘অসমাপ্ত আত্মজীবনী’র স্প্যানিশ সংস্করণ প্রসঙ্গে বলেন, ‘জাতির জনক বাংলা ভাষার পর সবচেয়ে মিষ্টি ও শ্রুতিমধুর ভাষা বলতেন স্প্যানিশ ভাষাকে। সেই ভাষায় তার অসমাপ্ত আত্মজীবনী অনূদিত হয়েছে। এতে আমি অত্যন্ত খুশি।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, যত বেশি ভাষা সাহিত্য চর্চা হবে তত বেশি সংস্কৃতির বিকাশ হবে।

এসময় তিনি, বাংলাদেশে নিযুক্ত স্প্যানিশ রাষ্ট্রদূতের হাতে কারাগারের রোজনামচা অব ইনটেলিজেন্স অন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বই দুটি তুলে দেন।

একই সঙ্গে ‘অসমাপ্ত আত্মজীবনী’র স্প্যানিশ সংস্করণ আনার জন্য উদ্যোগ নেওয়ায় স্পেনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত হাসান মাহমুদ খন্দকার এবং বাংলাদেশে নিযুক্ত স্পেনের রাষ্ট্রদূত আলভারো ডি সালাস জিমেনেজ ডি আজকারাতকে ধন্যবাদ জানান প্রধানমন্ত্রী। একই সঙ্গে স্প্যানিশ অনুবাদক বেঞ্জামিন ক্লার্ককেও ধন্যবাদ জানান তিনি।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here