সৌদি সাংবাদিক জামাল খাশোগির ছেলে ও ভাইয়ের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন দেশটির রাজা সালমান বিন আবদুল আজিজ ও যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান।

মঙ্গলবার সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদের একটি প্রাসাদে তাদের সঙ্গে রাজা ও যুবরাজ সাক্ষাৎ করেন। খাশোগির ছেলে ও ভাইয়ের সঙ্গে করমর্দন করেন তারা। এছাড়া এ সময় রাজা ও যুবরাজ তাদের সান্ত্বনা দেন। ওয়াশিংটন পোস্ট এ খবর দিয়েছে।

এর আগে জামাল খাশোগির ছেলেকে ফোন করে কথা বলেছেন যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান। সে সময়ও নিহত খাশোগির ছেলে সালাহকে সান্ত্বনা দিয়েছেন তিনি। তবে কোনো কোনো গণমাধ্যম জানিয়েছে, খাশোগি সৌদি আরব ত্যাগ করার পর থেকেই তার ছেলের সঙ্গে অন্যায় আচরণ করা হচ্ছে। সৌদি আরব থেকে তাকে বের হতে দেওয়া হচ্ছে না জানা গেছে।

অভিযোগ রয়েছে, যুবরাজের নির্দেশে রাষ্ট্রীয় পৃষ্ঠপোষকতায় খাশোগিকে হত্যা করা হয়েছে। গত বছর যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান সৌদি আরবের ক্ষমতার কেন্দ্রে আসার পর থেকে রোষানলে পড়েন ৫৯ বছর বয়সী খাসোগি। তিনি দেশ ছেড়ে স্বেচ্ছা নির্বাসনে যুক্তরাষ্ট্রে চলে যান। মার্কিন সংবাদমাধ্যম ওয়াশিংটন পোস্ট-এ যুবরাজের কর্মকাণ্ডের সমালোচনা করে একের পর এক কলাম লিখেছিলেন খাশোগি।

ঘটনার ১৭ দিন পর গত শনিবার কনস্যুলেট ভবনের ভেতরই সাংবাদিক জামাল খাশোগি নিহত হয়েছেন বলে স্বীকার করেছে সৌদি আরব। এর আগ পর্যন্ত দেশটি বলে আসছিল, খাশোগি কাজ শেষে কনস্যুলেট থেকে বেরিয়ে গেছে এবং তার নিখোঁজের ব্যাপারে তারা কিছু জানে না। কিন্তু ক্রমাগত আন্তর্জাতিক চাপের মুখে খাশোগির পরিণতির বিষয়ে মুখ খোলে সৌদি কর্তৃপক্ষ।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here