প্রধান নির্বাচন কমিশনার কে এম নুরুল হুদা বলেছেন, রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বৈঠকে তফসিল নিয়ে কোনো আলোচনা হয়নি। আগামী ৪ নভেম্বর কমিশনের বৈঠকে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।

বৃহস্পতিবার (১ অক্টোবর) বিকেলে বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের একথা বলেন সিইসি।

তিনি জানান, নির্বাচন ও কমিশনের প্রস্তুতির বিষয়ে রাষ্ট্রপতিকে অবহিত করা হয়েছে। নির্বাচনের আগে নিয়ম অনুযায়ী, এটা করতে হয়।

তিনি বলেন, ‘এটা অনানুষ্ঠানিক সাক্ষাৎকার। জাতীয় পর্যায়ের একটা নির্বাচন হবে। মহামান্য রাষ্ট্রপতিকে সেটার প্রস্তুতি সম্পর্কে অবহিত করা যে, আমরা কী করলাম। নির্বাচন নিয়ে আমাদের প্রস্তুতি কতদূর, ভোটার তালিকা হলো কিনা, কেন্দ্র কতদূর হল এ জাতীয় জিনিসগুলো তাকে অবহিত করতে হয়। নির্বাচন আসলে রাষ্ট্রপতিকে জানাতে হয়। এটারই একটা অংশ। এটার সাথে কোনো সিদ্ধান্ত দেয়া বা নেয়ার বিষয় এর সাথে জড়িত না।’

নির্বাচন কমিশনের প্রস্তুতি রাষ্ট্রপতি সন্তুষ্টি প্রকাশ করেছেন বলেনও জানান প্রধান নির্বাচন কমিশনার।

সিইসি বলেন, ‘তফসিলের বিষয়ে রাষ্ট্রপতি কিছু জানতে চাননি। আগামী ৪ নভেম্বর নির্বাচন কমিশনের বৈঠক হবে। ওই বৈঠকে তফসিলের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। তার আগে ভোটের দিনক্ষণ বলা সম্ভব না।’

তিনি বলেন, ‘যেদিন জাতীর উদ্দেশে ভাষণ দেবো সেদিনই বলবো (নির্বাচন কবে হবে)।’

নিজেদের প্রস্তুতির বিষয়ে সিইসি বলেন, ‘আমরা সাত দিনের মধ্যেও নির্বাচন করতে পারবো। আমরা প্রস্তুত। তবে ৪ তারিখের বৈঠকের পরেই সিদ্ধান্ত নিবো।’

একাদশ সংসদ নির্বাচনে সব রাজনৈতিক দল অংশ নেবে বলেও আশা প্রকাশ করেন তিনি।

বিকেল চারটার দিকে প্রধান নির্বাচন কমিশনার এ কে এম নুরুল হুদার নেতৃত্বে ছয় সদস্যের প্রতিনিধি দল রাষ্ট্রপতির সঙ্গে বৈঠক করেন।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here