আজ জেল হত্যা দিবস। কারাগারে জাতীয় চার নেতা হত্যার চূড়ান্ত বিচার শেষ হয়েছে পাঁচ বছর আগে। তবে, ৮ আসামি পলাতক থাকায় দণ্ড কার্যকর করা যায়নি এখনো।

পঁচাত্তরের আগষ্টে সপরিবারে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে হত্যার পর রাজনৈতিক টাল-মাটাল পরিস্থিতিতে গ্রেপ্তার করা হয় জাতীয় চার নেতা, সৈয়দ নজরুল ইসলাম, তাজউদ্দিন আহমদ, এ এইচ এম কামারুজ্জামান ও ক্যাপ্টেন মনসুর আলীকে।

৪৩ বছর আগে এই দিনে ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের ভেতর হত্যা করা হয় জাতীয় চার নেতাকে। দীর্ঘদিন বিচার আটকে থাকার পর ১৯৯৬ সালে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করলে সচল হয় মামলার কার্যক্রম।

২০০৪ সালের ২০ অক্টোবর মামলার রায়ে তিন জনকে মৃত্যুদণ্ড এবং ১২ জনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেন ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালত। ২০০৮ সালে হাইকোর্ট মৃত্যু দণ্ডপ্রাপ্ত দুই আসামিকে খালাস দিলে আপিল করে রাষ্ট্রপক্ষ। ২০১৩ সালের ১৫ এপ্রিল বিচারিক আদালতের রায় বহাল রাখেন আপিল বিভাগ।

মামলায় ৫ আসামির দণ্ড কার্যকর হলেও বেশিরভাগ আসামি এখনো পলাতক।

জেলহত্যা মামলার ১০ পলাতক আসামির মধ্যে যাবজ্জীবন দণ্ডপ্রাপ্ত আবদুল মাজেদ ও আবদুল আজিজ পাশার বিদেশে মৃত্যু হয়েছে। বাকি আট জন বিভিন্ন দেশে পলাতক।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here