প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কেএম নুরুল হুদা বলেছেন, আগামীকালই (৮ নভেম্বর) তফসিল ঘোষণা করা হবে। আমরা এর আগেও সংসদ নির্বাচন নিয়ে ঐক্যফ্রন্ট ও যুক্তফ্রন্টের সঙ্গে বৈঠক করেছি। আমাদের সকল প্রস্তুতি রয়েছে।

বুধবার (৭ নভেম্বর) বেলা সাড়ে ১২টার দিকে নির্বাচন ভবনের সম্মেলন কক্ষে জাতীয় পার্টির নেতৃত্বে সম্মিলিত জাতীয় জোটের প্রতিনিধিদলের বৈঠকের শুরুতে তিনি একথা বলেন।

এর আগে বেলা ১১টার দিকে দলটির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদের নেতৃত্বে ১৫ সদস্যের একটি প্রতিনিধি দল নির্বাচন কমিশনে প্রবেশ করেন। সকাল ১১টা ২০মিনিটে বৈঠকটি শুরু হয়ে দুপুর সাড়ে ১২টায় শেষ হয়।

প্রতিনিধি দলে ছিলেন- জাতীয় পার্টির মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার, প্রেসিডিয়াম সদস্য ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, এম এ সাত্তার, জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু, প্রফেসর দেলোয়ার হোসেন খান, মুজিবুল হক চুন্নু, সুনীল শুভ রায়, এসএম ফয়সল চিশতি, আব্দুস সবুর আসুদ, শফিকুল ইসলাম সেন্টু, আলহাজ আবু নাসের, সেকান্দার আলী মণি প্রমুখ।

বৈঠকে নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ ছাড়া আরও উপস্থিত ছিলেন নির্বাচন কমিশনার মাহবুব তালুকদার, মো. রফিকুল ইসলাম, বেগম কবিতা খানম, অবসরপ্রাপ্ত ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) শাহাদাৎ হোসেন চৌধুরী।

উল্লেখ্য, সংবিধান অনুযায়ী ২৮ জানুয়ারির মধ্যে ভোটগ্রহণের বাধ্যবাধকতা রয়েছে। নির্বাচন কমিশন ৮ নভেম্বর তফসিল দিয়ে ২০ ডিসেম্বরের মধ্যে ভোটগ্রহণের পরিকল্পনা নিয়েছে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here