অভিষেক টেস্টে ৫ উইকেট নিলেন বাংলাদেশের নাঈম হাসান। দুইবার জোড়া আঘাতের পর জোমেল ওয়ারিকানকে ফিরিয়ে পঞ্চম উইকেট পেলেন নাঈম। সাকিব আল হাসান পান শেষ উইকেটটি। তাতে চট্টগ্রাম টেস্টে প্রথম ইনিংসে ৩২৪ রান করা বাংলাদেশ ২৪৬ রানে গুটিয়ে দেয় ওয়েস্ট ইন্ডিজকে। ৭৮ রানে এগিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংস খেলবে স্বাগতিকরা।

শুরুতে ৩ উইকেট তুলে নেন সাকিব-তাইজুল। পরের দুই উইকেট তুলে নেন অভিষেক হওয়া স্পিনার নাঈম হাসান। এরপর টি২০ গতিতে খেলা হেটমায়ারকে ফেরান মিরাজ। পরের দুই উইকেট আবার দখলে নেন নাঈম।

চট্টগ্রামে ক্যারিবিয়দের প্রথম ইনিংসে ওপেনার কিয়েরন পাওয়েলকে প্রথমে আউট করেন তাইজুল ইসলাম। এরপর এক ওভারে দুই উইকেট তুলে নেন সাকিব। প্রথমে শাই হোপকে করেন বোল্ড। এরপর ব্রাথওয়েটকে স্লিপে ক্যাচে পরিণত করেন। মধ্যে একটি ক্যাচও ফেলেছেন মুশফিক। শুরুর ২৯ রানে কোন উইকেট না হারানো ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৩১ রানের মাথায় হারায় ৩ উইকেট।

এরপর আমব্রিস ও চেজ করেন ৪৬ রানের জুটি। নিজের ৩১ রানে নাঈমের বলে শট লেগে ক্যাচ দিয়ে ফেরেন চেজ। এর পরের ওভারে এসেই আবার উইকেট নেন ডানহাতি এই স্পিনার। ১৯ রানে ব্যাট করা আমব্রিসকে ফেরান তিনি। এরপর ৪৭ বলে পাঁচটি চার ও চারটি ছক্কায় ৬৩ রান করে মিরাজের বলে ফেরেন হেটমায়ার।

এর আগে মুমিনুলের সেঞ্চুরি আর শেষটায় তাইজুল-নাঈমের দৃড়তায় ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে প্রথম টেস্টে প্রথম দিন শেষে ৩১৫ রান তোলে বাংলাদেশ। দ্বিতীয় দিনের শুরুতে তার সঙ্গে মাত্র ৯ রান যোগ করলে পারেন তাইজুল-নাঈমরা। নাঈম হাসানের বিদায়ে ভাঙে তাদের ৬৫ রানের জুটি। শেষ পর্যন্ত ৩২৪ রানেই থামে বাংলাদেশের ইনিংস।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here