উত্তর কোরিয়া একটি নতুন কৌশলগত অস্ত্রের পরীক্ষা চালানোর প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে খবর পাওয়া গেছে। দেশটির একটি গণমাধ্যমের উদ্ধৃতি দিয়ে দক্ষিণ কোরিয়ার ইউনহাপ বার্তা সংস্থা এ খবর দিয়েছে।

এতে বলা হয়েছে, উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন একটি নয়া স্ট্রাটেজিক অস্ত্র পরীক্ষার স্থান পরিদর্শন করেছেন। উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্র নিয়ন্ত্রিত টেলিভিশন চ্যানেল এ খবর জানালেও এ সম্পর্কে বিস্তারিত আর কিছু জানায়নি।

উত্তর কোরিয়া সম্প্রতি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেছিল, সেদেশের ওপর থেকে মার্কিন নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা না হলে পিয়ংইয়ং তার পরমাণু অস্ত্র কর্মসূচি শক্তিশালী করবে।

উত্তর কোরিয়ার পরমাণু অস্ত্র ও ক্ষেপণাস্ত্রসহ কৌশলগত সব ধরনের অস্ত্র কর্মসূচি নিজে তদারকি করেন কিম জং-উন

এর আগে চলতি মাসে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উনের উপস্থিতিতে একটি শক্তিশালী  অত্যাধুনিক কৌশলগত অস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে পিয়ংইয়ং। অস্ত্রটি ঠিক কী ধরণের তা স্পষ্ট নয়। তবে এর ফলে উত্তর কোরিয়ার প্রতিরক্ষা সক্ষমতা অনেক বেড়ে গেছে বলে দেশটি দাবি করেছে।

গত ১৫ নভেম্বর প্রকাশিত খবরে উত্তর কোরিয়ার পক্ষ থেকে বলা হয়েছে, দেশটির জাতীয় প্রতিরক্ষা একাডেমি প্রাঙ্গণে নতুন অস্ত্রের পরীক্ষা চালানো হয়। তবে পরীক্ষার সঠিক সময় জানানো হয়নি।

চলতি বছরের জুন মাসে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সঙ্গে ঐতিহাসিক বৈঠকে বসেন উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উন। বৈঠকের পর ট্রাম্প জানান, সকল ধরণের পারমাণবিক কর্মসূচি বন্ধ করবে উত্তর কোরিয়া।

তবে ওই আলোচনার এক মাস পর উত্তর কোরিয়ার বিরুদ্ধে আরোপিত নিষেধাজ্ঞা এক বছরের জন্য নবায়ন করেন ট্রাম্প যাতে ক্ষুব্ধ হয় পিয়ংইয়ং।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here