নানা পাটেকারের বিরুদ্ধে যৌন হেনস্থার অভিযোগ এনেছিলেন তনুশ্রী দত্ত। ‘হর্ন ওকে প্লিজ়’ ছবির শুটিংয়ে একটি নাচের দৃশ্যে অভিনয় করার সময়ে তনুশ্রীকে অশালীন ভাবে ছুঁয়েছিলেন নানা। সেই ঘটনার সাক্ষী ছিলেন অভিনেত্রী ডেইজ়ি শাহ। তাই এই মামলার শুনানিতে মুম্বই হাইকোর্ট শমন পাঠাল ডেইজ়িকে। নোটিশটি পাঠানো হয় ওশিয়ারা পুলিশ স্টেশন থেকে।

ওই ছবিতে কোরিওগ্রাফার ছিলেন গণেশ আচার্য। তাঁর অ্যাসিসটেন্ট হিসেবে কাজ করছিলেন ডেইজ়ি। ঘটনার দিন সেটেই উপস্থিত ছিলেন তিনি। গণেশের বিরুদ্ধেও অভিযোগ দায়ের করেছিলেন তনুশ্রী। গণেশ আচার্য নাকি লোক দিয়ে ফোন করিয়ে তনুশ্রীকে হুমকি দিয়েছেন একাধিকবার। এরকমই অভিযোগ ছিল নায়িকার।

অ্যামেরিকা থেকে ফিরে তনুশ্রী যখন মুখ খোলেন, ডেইজ়ি সমর্থন করেছিলেন তাঁর অভিযোগকে। তনুশ্রীর পাশে থাকার প্রতিশ্রুতিও দেন তিনি। তবে নানা পাটেকারের উকিল অনিকেত নিকাম এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যকে জানান, “নানার বিরুদ্ধে সমস্ত অভিযোগ মিথ্যে।”

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here