লার্জার দ্যান লাইফ ছবির জন্যই মানুষ তাঁকে চেনে। তিনি হিরো। প্রেম নিবেদন থেকে শুরু করে ভিলেনের সঙ্গে মারপিট, সব কিছুতেই তিনি হিরো। কথা হচ্ছে শাহরুখ খানকে নিয়ে। এই হিরোকে যদি ‘জ়িরো’ হিসেবে না নিতে পারে মানুষ ? “যদি নিজের যোগ্যতার উপর বিশ্বাস না হারাই, কাজ আসতে থাকবে।”, বললেন শাহরুখ।

এর আগে শাহরুখের শেষ ছবি ‘জব হ্যারি মেট সেজল’ বক্স অফিস সাফল্য পায়নি। সেখানে শাহরুখ ধরা দিয়েছিলেন খুবই রিয়েলিস্টিক চরিত্রে।  ‘জ়িরো’ ছবিতে শাহরুখ একজন বামন। ট্রেলারেই বোঝা গেছে নিজের অভিনয় থেকে শুরু করে শরীরী ভাষা সব কিছু ভেঙে একেবারে সাধারণ মানুষ হয়ে উঠতে চেয়েছেন শাহরুখ। তাঁর এই এক্সপেরিমেন্ট কি গ্রহণ করবেন দর্শক?

শাহরুখ বললেন, “পুরোটাই লোকের ভাবনা, সেটা তো আমি বদলাতে পারব না। আমি কিছুই বদলাতে পারব না। তাহলে ভেবে কী হবে?” তিনি বললেন, “আমি হয়তো ছয় কি দশ মাস কাজ করব না। তারপর হয়তো আবার কামব্যাক করব, যেভাবে করে আসছি ১৫ বছর ধরে। বা হয়তো কামব্যাক করতে পারব না। কারণ ব্যবসায়িক দুনিয়াতে ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি নিয়ে কিছু দৃষ্টিভঙ্গি আছে। আর তাঁদের দিক থেকে তাঁরা ঠিক।”

‘ফ্যান’ বা ‘রইস’ ছবিতেও তিনি ভাঙার চেষ্টা করেছেন তাঁর হিরো অবতারকে। সেগুলোও সেভাবে গ্রহণ করেননি দর্শক। তবে শাহরুখের অভিনয় প্রশংসা পেয়েছে সমালোচকদের। ‘জ়িরো’ মুক্তি পাচ্ছে ২১ ডিসেম্বর। প্রত্যাশা কি পূরণ করতে পারবে এই ছবি ? সেটা ভবিষ্যৎই বলবে। ‘জ়িরো’-র জন্য ইনাড়ুর শুভেচ্ছা রইল।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here