রক্ষণভাগের মধ্যখানে অর্থাৎ সেন্ট্রাল ডিফেন্ডার পজিশনে আছেন চারজন। এদের মধ্যে একজনের রয়েছে চোট প্রবণতা। বেলজিয়াম তারকা থমাস ভারমেলেন খেলার চেয়ে চোট থেকে সেরে ওঠার পুনর্বাসন প্রক্রিয়ার মধ্যে থাকেন বেশি! এই মুহূর্তে নিঃসন্দেহে দলটির সেরা ডিফেন্ডার ফ্রান্সের স্যামুয়েল উমতিতি। কিন্তু চোটের কারণে বেশ লম্বা সময়ের জন্য ছিটকে যাওয়ায় তাকে আর কীভাবেই বা পাওয়া যাবে! বাকি রইলেন দুজন- স্প্যানিশ তারকা জেরার্দ পিকে আর আরেক ফরাসি ক্লেমেন্ত লেংলেত। এদের কারও একজনের কিছু হয়ে গেলে দল সাজাতেই হিমশিম খেতে হতো বার্সেলোনাকে!

তাই সঠিক কাজটাই করেছে বর্তমান স্প্যানিশ লা লিগা চ্যাম্পিয়নরা। এবারের মৌসুমের শীতকালীন দলবদলের শুরুতেই তারা দলে টেনেছে কলম্বিয়ান ডিফেন্ডার হেইসন মুরিয়োকে। বৃহস্পতিবার ক্লাবের নিজস্ব ওয়েবসাইট থেকে বিষয়টি নিশ্চিত করা হয়েছে। দলের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ সমস্যা মিটিয়ে এখন স্বস্তির নিঃশ্বাসই ফেলার কথা কাতালান কোচ আর্নেস্তো ভালভার্দের!

পাকাপাকিভাবে নয়, ছয় মাসের জন্য ধারে ভ্যালেন্সিয়া থেকে মুরিয়োকে এনেছে লিওনেল মেসির বার্সা। এর জন্য তাদের গুনতে হচ্ছে ২ মিলিয়ন ইউরো। তবে আগামী গ্রীষ্মে ২৭ বছর বয়সী এই ডিফেন্ডারকে স্থায়ীভাবে দলে নেওয়ার সুযোগ রয়েছে তাদের। সেজন্য বার্সাকে খরচ করতে হবে ২৫ মিলিয়ন ইউরো।

চুক্তি হয়ে গেলেও মাঠে নামার জন্য মুরিয়োকে অপেক্ষা করতে হবে আরও বেশ কিছুদিন। লিগের নিয়মানুসারে, আগামী বছরের জানুয়ারির ১ তারিখ থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে বার্সেলোনার জার্সি গায়ে মাঠে নামার উপযুক্ত বলে বিবেচিত হবেন তিনি।

২০১১ সালে ইতালিয়ান ক্লাব উদিনেসের হয়ে পেশাদার ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন মুরিয়ো। এরপর নাম লেখান স্প্যানিশ ক্লাব গ্রানাদায়। সেখানে উজ্জ্বল পারফরম্যান্স দেখিয়ে নজর কাড়েন ইন্টার মিলানের। ২০১৫-১৭ পর্যন্ত দুই মৌসুম সেখানে কাটিয়ে ধারে যোগ দিয়েছিলেন ভ্যালেন্সিয়ায়। এরপর চলতি মৌসুমের শুরুতে তাকে পাকাপাকিভাবে দলে টানে ক্লাবটি। কিন্তু ধারে খেলা অবস্থায়ই চোট পেয়েছিলেন মুরিয়ো। সেই সুযোগে গ্যাব্রিয়েল পলিস্তা, এজিকুয়েল গ্যারাইরা ভ্যালেন্সিয়ার মূল সেন্ট্রাল ডিফেন্ডারে পরিণত হয়েছেন।

২০১৮-১৯ মৌসুমে ভ্যালেন্সিয়ার হয়ে মাত্র তিনটি ম্যাচ খেলেছেন মুরিয়ো। ফলে তাকে ছেড়ে দিলেও খুব একটা অসুবিধা হবে না তাদের। তবে মুরিয়োর রয়েছে নিজেকে প্রমাণ করার তাগিদ! বার্সা যে উদ্দেশ্যে তাকে কিনেছে, সে দাবি তিনি পূরণ করতে পারবেন তো?

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here