ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোহাম্মাদ জাওয়াদ জারিফ বলেছেন, তার দেশ পরমাণু অস্ত্র তৈরি করতে চায় না এবং ইরানের ক্ষেপণাস্ত্রেও পরমাণু ওয়ারহেড বসানোর ব্যবস্থা রাখা হয়নি। ফ্রান্সের সাপ্তাহিক পত্রিকা ‘লা পয়েন্ট’কে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে একথা জানান তিনি।

জারিফ বলেন, জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদের ২২৩১ নম্বর নামক যে প্রস্তাবের কথা বারবার আমেরিকা বলে বেড়ায় তাতে পরমাণু অস্ত্র বহনে সক্ষম ক্ষেপণাস্ত্র তৈরি না করার জন্য ইরানের প্রতি আহ্বান জানানো হয়েছে। ইরান ওই প্রস্তাব মেনেই নিজের ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচি পরিচালনা করছে।

ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র কর্মসূচি সম্পর্কে আমেরিকাসহ অন্যান্য পশ্চিমা দেশের অযৌক্তিক অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে বলেন, মধ্যপ্রাচ্যের অনেকগুলো দেশের চেয়ে ইরানের সামরিক বাজেট অনেকভাগ কম।

ফ্রান্স প্রতি বছর সংযুক্ত আরব আমিরাতের হাতে শত শত কোটি ডলারের সমরাস্ত্র তুলে দিচ্ছে বলে অভিযোগ করেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী তিনি ফরাসি পত্রিকার সাংবাদিককে প্রশ্ন করেন, ফ্রান্স সরকার সৌদি আরব বা আরব আমিরাতকে যেসব অত্যাধুনিক জঙ্গিবিমান দিচ্ছে সেই একই জঙ্গিবিমান প্যারিস কি তেহরানের কাছে বিক্রি করবে যাতে ইরান আত্মরক্ষা করতে পারে?

জারিফ বলেন, ইরান কখনো কোনো দেশের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে চায় না বরং মধ্যপ্রাচ্যের সব দেশের সঙ্গে মিলেমিশে শান্তিতে থাকতে চায়। কিন্তু সৌদি আরব বরাবরই ইরানের বিরুদ্ধে সংঘাতে যাওয়ার চেষ্টা করে এসেছে বলে তিনি মন্তব্য করেন।

মধ্যপ্রাচ্যের ঘটনাপ্রবাহে সৌদি আরব ভুল নীতি গ্রহণ করেছে বলে অভিযোগ করেন ইরানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। তিনি বলেন, লেবানন, সিরিয়া, ইরাক, ইয়েমেন, আফগানিস্তান ও কাতারের ব্যাপারে একের পর এক ভুল নীতি বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে রিয়াদ।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here