একসঙ্গে একই ধারাবাহিকে অভিনয় করছেন নন্দিত তিন অভিনেত্রী ফারহানা মিলি, এ্যানি খান ও সালহা খানম নাদিয়া। সঞ্জিত সরকারের রচনা ও নির্দেশনায় ‘চিটিং মাস্টার’ ধারাবাহিক নাটকে ফারহানা মিলি, এ্যানি ও নাদিয়া অভিনয় করছেন যথাক্রমে সোনিয়া, বন্যা ও জিনিয়া চরিত্রে। নাটকের গল্পে মিলি ও নাদিয়া অর্থাৎ সোনিয়া ও জিনিয়া দুই বোন। তাদের বাসাতেই ভাড়া থাকেন বন্যা। এরইমধ্যে ধারাবাহিকটি স্যাটেলাইট চ্যানেল আরটিভিতে প্রচার শুরু হয়েছে।

ধারাবাহিকটিতে অভিনয় প্রসঙ্গে ফারহানা মিলি বলেন,‘ গত বছরও সঞ্জিত দাদার নির্দেশনায় একটি ধারাবাহিকে অভিনয় করেছিলাম। নতুন বছরেও তার নির্দেশনায় আরেকটি ধারাবাহিকে নিয়মিত হলাম। যদিও এরইমধ্যে নাটকটির প্রচার শুরু হয়েছে এবং বেশ ভালো সাড়াও পাচ্ছি। সঞ্জিত দাদা তার নির্মাণে বেশ সিরিয়াস একজন নির্মাতা। নির্মাণ কাজে বেশ অভিজ্ঞতাও রয়েছে তার। যেহেতু নিজেই নাটক রচনা করেন তাই তার কাজের প্রতি অন্যরকম দরদ আছে, সম্পূর্ণ মনোযোগ দিয়ে কাজটি করেন। মূলকথা খুব চমৎকার একটি ইউনিট তার। যে কারণে কোনরকম ঝামেলা ছাড়াই আমরা কাজটি করছি।’

নাটকটিতে অভিনয় প্রসঙ্গে এ্যানি খান বলেন,‘ এই মুহুর্তে আমি বেশ কিছু ধারাবাহিকে কাজ করছি। তবে সবগুলোর মধ্যে এই ধারাবাহিকের গল্প এবং আমার চরিত্রটি আমি বেশ উপভোগ করছি। সহশিল্পী হিসেবে আমার প্রিয় অনেক শিল্পীই আছেন। যে কারণে শুটিং-এর সময়টা আমার বেশ ভালো কাটে। সময়টা ভীষণ উপভোগ করি আমি। সঞ্জিত দাদা নির্মাতা হিসেবে অনেক যতœশীল একজন নির্মাতা। তাই এই ধারাবাহিকের জন্য আমি বেশ সাড়াও পাই।’

সালহা খানম নাদিয়া বলেন,‘ এই নাটকে আমি মিলি আপুর ছোট বোন জিনিয়া চরিত্রে অভিনয় করছি। যেহেতু ঢাকাইয়া ভাষার নাটক তাই শুটিং-এর সময়টা ভীষণ উপভোগ করি আমি। নিঃসন্দেহে বলতে হয় সঞ্জিত দাদার ইউনিট বেশ গুছানো একটি ইউনিট। প্রয়োজনের বাইরে অতিরিক্ত কোন সময়ের প্রয়োজন হয়না। তাই মাঝে মাঝে অনেক আগেই আমাদের শুটিং শেষ হয়ে যায়।’ নির্মাতা সঞ্জিত সরকার জানান প্রতি বুধ, বৃহস্পতি ও শুক্রবার রাত দশটায় আরটিভিতে নাটকটি প্রচার হচ্ছে। নাটকটিতে বিভিন্ন চরিত্রে আরো অভিনয় করছেন আনিসুর রহমান মিলন, মনিরা মিঠু, আরফান আহমেদ, আখম হাসান, তুষ্টি, মিলন ভট্ট’সহ আরো অনেকে।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here