রেল খাতের দুর্নীতি কমাতে প্রযুক্তির সহায়তা নেয়া হবে বলে জানিয়েছেন রেলমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনায় রেলের আধুনিকায়নে কাজ করছে মন্ত্রণালয়।

বুধবার (৩০ জানুয়ারি) সকালে রেল ভবনে রেলপথমন্ত্রী নুরুল ইসলাম সুজন এবং তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক যৌথভাবে এসব তথ্য জানিয়েছেন। সমন্বিত এই ডিজিটাল সেবা নিয়ে এদিন সকাল ১০টায় বৈঠকে বসেন দুই মন্ত্রীসহ সংশ্লিষ্টরা।

আগামী একবছরের মধ্যে রেলওয়ের জন্য তৈরি হবে ‘ওয়ান স্টপ ডিজিটাল সেবা’ অ্যাপ। এই একটি অ্যাপের মাধ্যমেই ট্রেনের টিকিট বুকিং ও মূল্য পরিশোধ করে টিকিট সংগ্রহ, ট্রেনের অবস্থান জানা থেকে শুরু করে রেলের সব ধরনের সেবা পাওয়া যাবে। একবছরের মধ্যে অ্যাপটি তৈরির পর তা উদ্বোধন করা হবে ২০২০ সালের এপ্রিলে।

অনুষ্ঠানে রেল খাতের ডিজিটাইজেশনের পরিকল্পনা তুলে ধরেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

এসময় রেল ব্যবস্থাপনা, জণগনের সেবা নিশ্চিত করতে তথ্য প্রযুক্তির ব্যবহার বাড়ানোর মাধ্যমে সেবার মান উন্নত করার কথা বলেন রেলমন্ত্রী।

তিনি জানান, বিগত ১০ বছরে সরকার রেল যোগাযোগ উন্নয়নে নিরোলস কাজ করেছে, এখন মানুষ আগের তুলনায় উন্নত সেবা পাচ্ছে।

অনুষ্ঠানে আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জানান, রেল খাতের ডিজিটালাইজেশন হলে সেবার মান বাড়বে, যাত্রী সেবা সর্বোচ্চ নিশ্চিত হবে। রেলের প্রযুক্তি উন্নয়নে নেওয়া হয়েছে উদ্যোগ।

সভায় রেলপথ মন্ত্রণালয়ের সচিব মোফাজ্জল হোসেন, রেলওয়ে মহাপরিচালক কাজী রফিকুলআলম, এটুআই প্রকল্প পরিচালক মো. মোস্তাফিজুর রহমানসহ দুই মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here