বাংলাদেশের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ও বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়টি সম্পূর্ণভাবে আইনি বিষয়, এর সঙ্গে রাজনীতির কোনো সম্পর্ক নেই বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

শুক্রবার ধানমণ্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘খালেদা জিয়ার এক বছরের কারাবাসের ব্যাপারে বিএনপিকে জিজ্ঞেস করুন। এক বছরের আইনি লড়াইয়ে কেন তারা সফল হয়নি, এক বছরে কেন আন্দোলন করে মুক্ত করতে পারেনি। এটা তাদের বিষয়, এটা আমাদের কোনো বিষয় নয়।’

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমরা খালেদা জিয়াকে কারাগারে নিইনি। তাঁকে কারাগারে নিয়েছেন আদালত। তাঁকে মুক্তিও দিতে পারেন আদালত। এটা কোনো রাজনৈতিক ইস্যু নয়।’

গত বছরের ৮ ফেব্রুয়ারি পাঁচ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেয়ার মাধ্যমে আদালত থেকে কারাগারে পাঠানো হয় সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীকে। এরপর এই মামলার আপিল শুনানি শেষে হাইকোর্ট তাঁর সাজা বাড়িয়ে ১০ বছর করেন। রাজধানীর পুরান ঢাকার সাবেক কেন্দ্রীয় কারাগারে খালেদা জিয়াকে রাখা হয়েছে। ওই কারাগারে একমাত্র বন্দি হিসেবে আজ এক বছর কেটে গেল খালেদা জিয়ার।

দলীয় চেয়ারপারসনকে যে এতদিন বন্দি থাকতে হবে, তা তখন ‘কল্পনাই করতে পারেননি’ বলে বৃহস্পতিবার এক অনুষ্ঠানে মন্তব্য করেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমেদ।

তিনি বলেন, “কোনো দিন কল্পনা করতে পারি নাই যে বাংলাদেশের সবচাইতে জনপ্রিয় নেত্রী এবং তিনবারের নির্বাচিত প্রধানমন্ত্রীকে একটা তুচ্ছ ভিত্তিহীন মামলায় সাজা দেবে। পাঁচ বছরের সাজায় আপিল ফাইল করার পর সাত দিনের বেশি উনার জেলখানায় থাকার কথা নয়।”

**রাজনৈতিক, ধর্মবিদ্বেষী ও খারাপ কমেন্ট করা থেকে বিরত থাকুন।**

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here